প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:      পাকিস্তানের বেলুচিস্তান প্রদেশে আওয়ামী পার্টির (বিএপি) বৈঠকে আত্মঘাতী বোমা হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১২৮ হয়েছে। হামলায় আসন্ন নির্বাচনের প্রার্থী নবাবজাদা সিরাজ রাইসানিও মারা গেছেন। শুক্রবার বেলুচিস্তান প্রদেশের মাসতুংয়ে এ হামলায় কমপক্ষে আরও দেড় শতাধিক মানুষ আহত হয়েছেন। খবর- রয়টার্স।

 

 

 

 

 

হতাহতদের কোয়েটা সিভিল হাসপাতাল, বলান মেডিকেল কমপ্লেক্স ও কেয়েটা মিলিটারি হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। প্রদেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আঘা উমর বুঙ্গালজাই বলেছেন, নওয়াবজাদা সিরাজ বাইসানির সভাকে লক্ষ্য করে এ বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। আহত অবস্থায় কোয়েটায় নেয়ার পর সিরাজ বাইসানি মারা গেছেন।

 

 

 

 

 

বুঙ্গালজাইসহ প্রদেশটির সিভিল ডিফেন্স ডিরেক্টর আসলাম তারিন জানিয়েছেন, এটি একটি আত্মঘাতী বিস্ফোরণ।

 

 

 

 

আগামী ২৫ জুলাই পাকিস্তানে জাতীয় নির্বাচন হবে। এ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দেশটিতে হামলার ঘটনা বেড়েছে। গত মঙ্গলবার রাতে পেশোয়ারে আওয়ামী ন্যাশনাল পার্টির (এএনপি) নির্বাচনী সমাবেশে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এতে ২১ জন নিহত হন।

 

 

 

 

 

 

এদিকে লন্ডন থেকে দেশে ফিরে গ্রেফতার হয়েছেন পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ ও তার মেয়ে মরিয়ম নওয়াজ। শুক্রবার স্থানীয় সময় রাত পৌনে ৯টার দিকে লাহোর বিমানবন্দরে নামার পর তাদের গ্রেফতার করা হয়।