প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:     সম্পূরক কর্মসূচিতে কওমি মাদ্রাসাসমূহের দাওরায়ে হাদিসের (তাকমিল) সনদকে মাস্টার্স ডিগ্রির (ইসলামিক স্টাডিজ) সমমান দেওয়ার সংক্রান্ত বিল সোমবার সংসদে উত্থাপিত হয়েছে।

 

 

 

 

 

স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদের ২২তম অধিবেশনে সোমবার দ্বিতীয় সম্পূরক কর্মসূচিতে ‘আল হাইআতুল উলয়া লিল-জামআিতিল কাওমিয়া বাংলাদেশ বা কওমি মাদ্রাসাসমুহের দাওরায়ে হাদিসের (তাকমিল) সনদকে মাস্টার্স ডিগ্রির (ইসলামিক স্টাডিজ) সমমান প্রদান আইন ২০১৮ বিলটি উত্থাপন করেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

 

 

 

 

 

 

বিধি মোতাবেক তিনদিন আগে বিলটি সংসদ সদস্যদের কাছে বিলি না করায় জাতীয় পার্টির এমপি ফখরুল ইমাম বিলটি উত্থাপনে আপত্তি জানান। তিনি বলেন, স্পিকার তিনদিন আগে বিল পাওয়া সদস্যদের অধিকার।

 

 

 

 

সেক্ষেত্রে আপনার বিশেষ ক্ষমতা প্রয়োগ করেই বিলটি উত্থাপন করতে পারেন। কারণ সম্পূরক কর্মসূচিতেও বিলটি অন্তভুক্ত ছিল না। কিছুক্ষণ আগে বিলটি পেয়েছি।

 

 

 

 

 

পরে স্পিকার বলেন, এই অধিবেশনে বিলটি পাসের জন্য নির্ধারিত থাকায় বিলটি উত্থাপন করা প্রয়োজন। বিলটি উত্থাপনের পর সাত দিনের মধ্যে সংসদে রিপোর্ট প্রদানের জন্য বিলটি শিক্ষা মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটিতে প্রেরণ করা হয়।

 

 

 

 

 

 

বিলের উদ্দেশ্য ও কারণ সম্বলিত বিবৃতিতে বলা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনার আলোকে কওমি মাদ্রাসার দাওরায়ে হাদিসের (তাকমিল) সনদকে মাস্টার্স ডিগ্রির (ইসলামিক স্টাডিজ) সমমান আইন ২০১৮ বিল আকারে সংসদে উপস্থাপন করা হল।