প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:     অনুরোধের জবাব দিচ্ছিলেন গাড়িতে থাকা নারী। ছবি: সার্জেন্ট ঝোটনের ফেসবুক আইডিতে শেয়ার করা ভিডিও’র স্ক্রিনশট

 

 

 

রাজধানীর মিরপুর ১৩ নম্বরের স্কলাস্টিকা স্কুলের সামনের রাস্তায় প্রচণ্ড জ্যাম লে‌গে আছে। এসময় এক সার্জেন্ট একটি প্রাইভেটকারকে সরিয়ে দিতে অনুরোধ করতেই গাড়ির ভেতর থেকে বেশ কড়া গলায় জবাব দেয় এক নারী। এ ভিডিটি সার্জেন্ট ঝোটনই তার ব্যক্তিগত ফেসবুক অ্যাকাউন্টে পোস্ট করেন।

 

 

 

 

 

তিনি ভিডিওর ক্যাপশনে লেখেন, ‘এই ভদ্র ম‌হিলা মিরপুর ১৩ নাম্বার স্কলা‌স্টিকা স্কু‌লের সাম‌নে তার প্রাই‌ভেট কার (ঢাকা মে‌ট্রো~গ~২৬~৯৩৪৭) ডাবল লে‌নে পা‌কিং ক‌রে রে‌খে‌ছেন। তার গা‌ড়ির জন্য পিছ‌নের গা‌ড়ি গু‌লো আস‌তে পার‌ছেনা। প্রচন্ড জ্যাম লে‌গে আছে। তা‌কে অনেক বার স‌বিনয় অনু‌রোধ করলাম আপু আপনার গা‌ড়ির ড্রাইভা‌র‌কে ডে‌কে দ্রুত গা‌ড়ি‌টি স‌রি‌য়ে পিছ‌নের গা‌ড়ি গু‌লো আসার সু‌যোগ দিন এবং জ্যাম মুক্ত ক‌রেন।‌

 

 

 

 

কিন্তু না, তি‌নি আমার কোন কথা তো শুন‌লেনই না বরং আমা‌কে খারাপ ভাষায় গালাগা‌লি ক‌রেন এবং সা‌থে ব‌লেন তু‌মি সরকা‌রের ২ টাকার চাকর, আমা‌কে চেনো তু‌মি!?, কার গা‌ড়ি জা‌নো এটা!? আরো অনেক খারাপ কথা!’

 

 

 

 

কয়েকটি ক্লিপস আকারে ঝোটনের পোস্ট করা ভিডিওতে দেখা যায়, অনেকটা হুমকি-ধামকি দিয়ে ঝোটনকে শাসিয়েছেন এমপির কন্যা পরিচয় দেওয়া সেই নারী।

 

 

 

 

 

প্রাইভেটকারটিকে সরিয়ে দিতে অনুরোধ করতে করতে এগোচ্ছিলেন ট্রাফিক পুলিশের সার্জেন্ট ঝোটন সিকদার। কিন্তু গাড়ির ভেতরে থাকা নারী তার সেই বিনীত অনুরোধের জবাব দিচ্ছিলেন ঠিক এভাবে—

 

 

 

 

‘এই কার গাড়ির ছবি তোলো? এটা সরকারি দলের লোকের গাড়ি। কার গাড়ির ছবি তোলো? বেশি…কইরো না! তোমার মতো সার্জেন্ট কয় টাকা বেতনে চাকরি করে? কয় টাকা বেতনে চাকরি করে তোমার মতো সার্জেন্ট? আমরা প্রধানমন্ত্রীর লোক, ঠিক আছে? যদি সাহস থাকে…আমার বাবা জাতীয় কমিটির সদস্য, আমার বাবা এমপি, ঠিক আছে? তোমার মতো হাজারটা সার্জেন্ট…ঠিক আছে? কয়টাকা বেতনে চাকরি করো? হ্যাঁ চাকরই তো..চাকরই তো!’

 

 

 

 

যদিও তাৎক্ষণিকভাবে ওই নারীর পরিচয় জানা যায়নি। তবে দেশের ‘‌সড়ক ব্যবস্থাপনা মেরামতে’ শিক্ষার্থীরা নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের মতো বড় ঝাঁকুনি দেওয়ার পরও নিয়ম ভেঙে উল্টো ট্রাফিক সার্জেন্টকে এমন হুমকি দেওয়ায় ওই নারীর তুমুল সমালোচনা শুরু হয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। অনেকে তার পরিচয় শনাক্ত করে যথাযথ আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি তুলেছেন।