প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:       রোহিঙ্গা পুনর্বাসনের জন্য নোয়াখালীর ভাসানচরের বিপুল অংশ প্রস্তুত করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া। ২৫ হাজার রোহিঙ্গা পরিবারকে ভাসানচরে নেওয়ার প্রস্তুতি শেষ হয়েছে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রী।

 

 

আজ বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ত্রাণমন্ত্রী বলেন, সব রেডি, প্রধানমন্ত্রী যেদিন বলবেন, সেদিনই। আমরা প্রস্তুত।

 

 

অল্প সময়ে ভাসানচর প্রস্তুত করায় বাংলাদেশ নৌবাহিনীকে ধন্যবাদ জানান মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া।

 

 

সব মিলিয়ে সেখানে এক লাখ রোহিঙ্গাকে অস্থায়ীভাবে নেওয়ার কাজ চলছে বলেও জানান তিনি।

 

 

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের অধীনে সম্পূর্ণ নিজস্ব অর্থায়নে ২ হাজার ৩১২ কেটি টাকার এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে বাংলাদেশ নৌবাহিনী। সম্পূর্ণ সরকারি অর্থায়নের এ প্রকল্পের কাজ ২০১৯ সালের নভেম্বরের মধ্যে শেষ করার লক্ষ্য নির্ধারিত আছে।