প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট :  চাল, ডিমের পর এবার প্লাস্টিকের আটা – চাল, চিনি, ডিম নিয়ে একাধিক অভিযোগ আগেই উঠেছিল। এবার আটাতেও প্লাস্টিক মেশানোর অভিযোগ উঠল ভারতে। এই ঘটনাকে ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে আলিপুরদুয়ার জেলার মাদারিহাট ব্লকের বীরপাড়া চা-বাগানে। অভিযোগ, রাজ্য সরকার দু’টাকা প্রতি কেজি দরে যে আটা দেয়, তাতে প্লাস্টিক জাতীয় কিছু মেশানো হচ্ছে।

আলিপুরদুয়ার ছাড়াও এই অভিযোগকে ঘিরে আতঙ্ক তৈরি হয়েছে উত্তরবঙ্গের আরো বেশ কয়েকটি চা বাগান, ডুয়ার্স ও তরাই অঞ্চলেও।

চা বাগানের শ্রমিকরা বলছেন, রেশনের আটার তৈরি রুটি আগুনের সামনে ধরলে নাকি প্লাস্টিকের মতো পুড়ে যাচ্ছে। এমনকি, পানি মিশিয়ে মাখার সময়ও নাকি প্লাস্টিকের মণ্ড তৈরি হচ্ছে। অনেকেই এই অভিযোগ তুলে সরকারি আটা ফেলে দিচ্ছেন বলে দাবি করেছে একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম।

এর আগে রাজ্যে প্লাস্টিকের ডিম, চাল, চিনি নিয়েও অভিযোগ উঠলেও কোন ক্ষেত্রেই তার সারবত্তা প্রমাণিত হয়নি। শুধু এই রাজ্যেই নয়াদিল্লি, অন্ধ্র ও তেলেঙ্গানাতেও একই অভিযোগ উঠেছিল। সোশ্যাল মিডিয়ায় এরকম বহু ছবি ছড়িয়ে পড়ে। যদিও বিশেষজ্ঞদের দাবি, ওই সব ছবিই ভুয়া। বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই রেশনের খাদ্যসামগ্রীর বিরুদ্ধে এই ধরনের অভিযোগ ওঠে।