প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট :   বিজ্ঞাপনের শুটিং করতে গিয়ে বিপাকে পড়েছেন অভিনেত্রী রাবিনা টেন্ডন। ভারতের লিঙ্গরাজ মন্দির চত্বরে শুটিং করায় তাঁর বিরুদ্ধে দায়ের মামলা দায়ের করেছে মন্দির কর্তৃপক্ষ।

 

 

 

অভিযোগ, লিঙ্গরাজ মন্দিরের নো ক্যামেরা জ়োনে শুটিং করছিলেন। ছিল না কোনও অনুমতিপত্রও। যার জেরেই মন্দির কর্তৃপক্ষ এই মামলা করে।

 

 

 

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, গত রবিবার মন্দিরে যান রাবিনা। সেখানে
মন্দিরের ভিতরে রাবিনার সঙ্গে থাকা একব্যক্তি মোবাইল ক্যামেরায় রেকর্ডিং শুরু করে। সেই সময় মন্দিরের কর্মীদের বিষয়টি নজরে আসে।

 

 

 

১১ শতকের এই শিবমন্দিরে মোবাইল ফোন থেকে শুরু করে যে কোনও ধরনের ক্যামেরায় নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। তারপরও রবিনার সঙ্গে থাকা ওই ব্যক্তি কীভাবে ফোন নিয়ে ভিতরে প্রবেশ করল, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে।

 

 

 

ভুবনেশ্বরের ডিসিপি সত্যব্রত ভোই মামলার কথা নিশ্চিত করেন। মন্দির কর্তৃপক্ষের ম্যানজমেন্ট ইন চার্জ রাজীব লোচান বলেন, মন্দির কর্তৃপক্ষ রাবিনা টেন্ডনের বিরুদ্ধে নো ক্যামেরা জোনে শুটিং করার অভিযোগ দায়ের করেছে।

 

 

 

তাঁদের দাবি, নো ক্যামেরা জোনে ক্যামেরা নিয়ে যাওয়া মন্দিরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা সংক্রান্ত নিয়ং ভেঙেছেন অভিনেত্রী। যদিও এ বিষয় রাবিনার কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।