প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট :  ওয়াজেদ আলী সুমনের ‘হিটম্যান’ ছবির মাধ্যমে দর্শকদের হৃদয়ে জায়গা করে নেন জয় চৌধুরী। এরপর ‘চিনিবিবি’ ছবিটিও প্রশংসা পায়।

 

তবে মালেক আফসারীর ‘অন্তর জ্বালা’ ছবিটি যেন জয়কে নতুন করে চিনিয়েছে দর্শকদের কাছে। শুধু তাই নয়, নাম করা সব নির্মাতারাও প্রশংসা করছে জয়ের।

 

জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রাপ্ত ছবির পরিচালক গাজী জাহাঙ্গীর বলেন, ‘নতুন এক সুপারস্টারের জন্ম হলো। আগামী দিনের লিডার জয়। এত সাবলীল অভিনয় সম্প্রতি কারও মধ্যে দেখিনি। অবশ্যই জয় অভিনেতা হিসেবে আমার হৃদয় জয় করলো।

মুস্তাফিজুর রহমান মানিক বলেন, ‘জয় এত ভালো অভিনয় করে জানতাম। চোখে পানি এনে দিলো। কখন অজান্তে কেঁদে ফেললাম জানিনা।

অনেক অনেক শুভ কামনা। খুব শিগগির একসঙ্গে কাজ হবে।

জয়ের প্রশংসা করেছে অভিনেতা অভিনেত্রীরাও।

 

সাইমন বলেন, ‘পুরো ছবিটা আলাল আর দুলালকে ঘিরে। অন্যরকম ঘোরে ছিলাম। মনে হয়েছে এটা আমারই গল্প। আলাল দুলালের জন্য শুভকামনা। ‘

অভিনেত্রী রোমানা নীড় বলেন, ‘জয় আমার সহঅিভেনতা। কিন্তু কখনো বুঝতে পারিনি সে এত ভালো অভিনয় করে। সত্যিই মুগ্ধ হলাম। ‘

শুধু মিডিয়ার মানুষ নন, জয়ের প্রশংসায় এখন সারা বাংলাদেশ। প্রতিদিন শত শত মানুষ তাঁর প্রশংসা করে পোস্ট দিচ্ছেন ফেসবুকে।

জয় বলেন. ‘নতুন এক জয়কে জন্ম দিলো অন্তর জ্বালা। এত প্রশংসা, এত ভালোবাসা, সত্যিই আমি অভিভূত। শ্রদ্ধেয় মালেক আফসারী স্যারের কাছে কৃতজ্ঞ। তিনিই আমাকে সুযোগ করে দিয়েছেন কাজটি করতে। আজ সারা বাংলাদেশ আমাকে চিনলো। নির্মাতারাও আমাকে নিয়ে ভাবছেন। আমি সত্যিই উচ্ছ্বসিত। এই ভালোবাসা আমাকে আরও ভালো কাজ করার অনুপ্রেরণা জাগাবে।