প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট :     গ্রামে ৭০টি পরিবারের বসবাস। সে গ্রামে প্রত্যেক পুরুষেরই দু’জন করে স্ত্রী। ভারতের রাজস্থানের বার্মের জেলার দেরাসর গ্রামেই এমন আশ্চর্য প্রথা রয়েছে।

 

জানা গেছে, ওই গ্রামে সবমিলিয়ে ছয়শ মানুষের বাস। সবাই ইসলাম ধর্মাবলম্বী। তবে এই গ্রামের প্রত্যেক পুরুষের দু’জন করে স্ত্রী থাকার কারণ কিন্তু ধর্ম নয়। এর পিছনে রয়েছে ভিন্ন বিশ্বাস।

সেই বিশ্বাসটি একেবারেই আজব। সে গ্রামে কারোই প্রথম পক্ষের স্ত্রীর গর্ভে নাকি সন্তান আসে না! কোনো ব্যাখ্যা নেই এই ঘটনার। কিন্তু এমনটাই নাকি ঘটে আসছে বহু বছর ধরে। গ্রামবাসীদের দাবি অন্তত সেটাই।

দ্বিতীয় বিয়েতে প্রথম পক্ষের স্ত্রীদের কোনো ক্ষোভ থাকে না। তারাই অপত্যস্নেহে মানুষ করেন দ্বিতীয় স্ত্রীর গর্ভের সন্তান। তবে ঠিক কী কারণে প্রথম পক্ষের স্ত্রীদের ক্ষেত্রে এরকমটা ঘটে তা এখনো জানা যায়নি।