প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট :   মডেল ও অভিনেতা অর্ণব মারগুলিস অন্তু রবিবার সকালে জেট এয়ারওয়েজের একটি ফ্লাইটে কলকাতা থেকে ঢাকায় ফিরছিলেন। ঢাকার আকাশসীমায় প্রবেশের সাথে সাথে সেই বিমানটি ঝড়ের কবলে পড়ে। নির্ঘাত মৃত্যুর মুখ থেকে ফেরেন অন্তু- অন্তত  তাঁর বর্ণনায় এমনটাই জানা গেল। পুরো বিষয়টি জানিয়েছেন তাঁর নিজের ফেসবুক হ্যান্ডেলে।

 

অন্তু শুরুতেই লিখেছেন, অদ্ভুত মৃত্যুপুরী থেকে ফিরে আসলাম। সকাল ৭.২০, কলকাতা থেকে জেট এয়ার রওনা করে, ৩০মিনিটে ঢাকা পৌঁছানোর কথা।

কলকাতা থেকে ফিরছেন উল্লেখ করে বলেন, কলকাতা সময় সকাল ৮ টায় ঢাকার আকাশের কালো মেঘের সাথে ব্যাপক ধাক্কা খেতে লাগলো প্লেনটি! আশপাশ থেকে মানুষের দোয়া দরুদ, আল্লাহ, আল্লাহ, চিৎকার আমাকে ক্রমশ কাবু করে ফেলে! শরীর নিস্তেজ হয়ে আসে।

মুর্ছাও গিয়েছিলেন জানিয়ে অন্তু বলেন, এর পর যখন সেন্স আসে, তখন দেখি মানুষ আমারসহ অনেকের মুখে পানি দিচ্ছে,আর শুনছি আমরা ঢাকা থেকে ১২০কি:মি দূরে অপেক্ষা করছি, ঝড় থামার।

অন্তু ফেসবুকে লিখেছেন, ৩০মিনিটের জার্নি ২ঘণ্টা ১০মিনিটে পৌছালো। তখনো আমরা আকাশে। সকাল ৯টা ৫০ মিনিটে ঘোষণা আসে, উই হ্যাভ টু ল্যান্ড ইমার্জেন্সি। সম্ভবত জ্বালানি শেষের পথে তাই হয়তোবা। সকাল ১০টায় ভয়ানক মেঘের মধ্যে দিয়ে ঢুকে হাজারো ঝাঁকুনি সহ্য করে আমাদের সেইফলি ল্যান্ড করান পাইলট।

শেষ মুহূর্তের অভিজ্ঞতা জানিয়ে অন্তু বলেন, সবাই জাস্ট কিছুক্ষণ চুপ থাকার পর, করতালি দিল পাইলটকে উদ্দেশ্য করে। এ যেন এক ফিরে আসার গল্প। ধন্যবাদ, জেট এয়ারওয়েজ,ধন্যবাদ পাইলট, তোমাদের দক্ষতায় আমরা নিরাপদে বাড়ি ফিরেছি।