প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট :  ভারতের ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত বিজেপি নেতা বিপ্লব কুমার দেব বলেছেন, যারা সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং পড়েন তারা  নাকি সিভিল সার্ভিসে কাজ করার জন্য মেকানিকাল ইঞ্জিনিয়ারিং এর ছাত্রদের চেয়ে বেশি যোগ্য!

 

ভারতের সাবেক বিশ্ব সুন্দরী ডায়ানা হেইডেনকে নিয়ে কটু মন্তব্য করে নিন্দিত হওয়ার মাত্র ৪৮ ঘন্টার মধ্যে তিনি ফের এমন ধরনের হাস্যকর মন্তব্য করলেন।

শনিবার ত্রিপুরার প্রাদেশিক রাজধানী আগরতলায় সিভিল সার্ভিস দিবস উপলক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তিনি এই মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, ‘যারা মেকানিকাল ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ে এসেছেন তাদের সিভিল সার্ভিসে কাজ করার দরকার নেই। কারণ সিভিল ইঞ্জিনিয়াররাই শুধু জানেন কীভাবে সমাজ গড়তে হয়।’

তিনি আরো বলেন, সিভিল সার্ভিসে যোগ দেওয়ার পর কনস্ট্রাকশন প্রকল্পগুলো সিভিল ইঞ্জিনিয়াররা যতটা সহজে সামলাতে পারবেন ততটা পারবেননা মেকানিকাল ইঞ্জিনিয়াররা।

গত বৃহস্পতিবার দেব কুমার ১৯৯৭ সালের মিস ওয়ার্ল্ড বিজয়ী ডায়ানা হেইডেনকে ঐশ্বরিয়ার মতো সুন্দরী নয় বলে কটুক্তি করেন। এবং বলেন, ডায়ানা ভারতীয় নারীদের সৌন্দর্যে্যর প্রতিনিাধিত্ব করেন না। বরং ঐশ্বরিয়াই ভারতীয় নারীদের সৌন্দর্যে্যর প্রকৃত প্রতিনিধিত্ব করেন। আর ডায়ানাকে বিশ্ব সুন্দরীর খেতাব দেওয়া যাতে বহুজাতিক কসমেটিক্স কম্পানিগুলোর পণ্য ভারতের বাজার দখল করতে পারে।

তার ওই বক্তব্যের জেরে ভারতের নারীবাদীরা তীব্র প্রতিবাদ জানালে বিপ্লব একদিন পর ক্ষমা চাইতে বাধ্য হন। বিপ্লব বলেন, ‘আমি নারীদেরকে নিজের মায়ের মতো সম্মান করি। আমার কথায় কেউ কষ্ট পেয়ে থাকলে আমি অনুতাপ করছি।’

এর আগে চলতি মাসের শুরুর দিকে তিনি বলেছিলেন, তিনি বিশ্বাস করেন ভারতের প্রাচীন যুগে ইন্টারনেট ও স্যাটেলাইট প্রযুক্তি ছিল। যার প্রমাণ আছে মহাভারতে। আর ওই প্রযুক্তি ব্যবহার করেই অন্ধ রাজা ধৃতরাষ্ট্রকে কুরুক্ষেত্রের যুদ্ধের বিবরণ শুনিয়েছিলেন তার সভাসদ সঞ্জয়।

প্রসঙ্গত, ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত ভারতীয় নাগরিক এবং ভারতের হিন্দুত্ববাদী সংগঠন বিজেপির নেতা। তার পৈত্রিক বাড়ি ছিল বাংলাদেশের চাঁদপুর জেলার কচুয়া থানায়।