প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট :   মাঠের বাইরে ক্রিকেটারদের উশৃঙ্খল জীবনযাপনের কথা কারও অজানা নয়। এবার দলের মধ্যে নিয়মশৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য আইপিএলে অভিনব নিয়ম প্রথা চালু করেছে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। যে প্রথার ব্যতিক্রম হচ্ছে না মহেন্দ্র সিংহ ধোনির চেন্নাই সুপার কিংসের বিপক্ষে দুর্দান্ত জয়ের পরেও। তাছাড়া ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটে ক্রিকেটাররা দুই মাসের জন্য আসেন বলেও ছাড় দেওয়া হচ্ছে না। রুলস ইজ রুলস! তবে, এই শাস্তি কিন্তু বেশ অভিনব এবং মজারও বটে।

 

মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের দল পরিচালন সমিতি ঠিক করেছে, অনুশীলনে বা বাস ধরতে অথবা দলের বৈঠকে কোনো ক্রিকেটার দেরি করে এলেই তাকে শাস্তি দেওয়া হবে। শাস্তি হলো, ‘বিশেষ পোশাক’ পরে দলের সঙ্গে যাত্রা করতে হবে তাদের। চেন্নাইয়ের বিপক্ষে জেতার পরে রবিবার ব্যাঙ্গালুরু যাত্রা করেন রোহিত শর্মারা। তাদের দলের দুই তরুণ ক্রিকেটার ঈশান কিষাণ এবং অনুকূল রায় এই বিশেষ পোশাক পরেই গেলেন দলের সঙ্গে।

হোটেল থেকে বেরনোর সময় থেকে শুরু করে বাসে, বিমানবন্দরে, উড়ানে করে বেঙ্গালুরু পর্যন্ত পুরো পথটাই তাদের পোশাক পাল্টানোর উপায় নেই। জানা গেছে, একজন দেরিতে টিম মিটিংয়ে এসেছিলেন। অন্য জন দলের বাসকে দাঁড় করিয়ে রেখেছিলেন। সেই কারণেই এমন শাস্তি। মজা করে সাজা পাওয়া ক্রিকেটারদের ডাকা হচ্ছে ‘ফ্যাশন তারকা’ নামে!

বিমানবন্দরে দুই তরুণ ক্রিকেটারকে এমন পোশাকে দেখে যাত্রীরাও অবাক হয়ে গিয়েছিলেন। অনেকে এসে সেলফিও তুলতে শুরু করেন। দলের অনেক ক্রিকেটারই মজা করতে থাকেন। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের এক কর্মকর্তা বলেন, ‘মজা করে হলেও যে বার্তা দেওয়া যায়, এটা তারই একটা উদাহরণ। দেরি করার জন্য বিশেষ ধরনের পোশাক পরানোর ব্যাপারে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। রোহিত শর্মা অধিনায়ক। কিন্তু ওরও যদি দেরি হয়, একই শাস্তি পেতে হবে।’

এমনিতে দেরি করার জন্য শাস্তি দেওয়ার প্রথা এই প্রথম দেখা গেল, এমন নয়। ভারতীয় ক্রিকেট দলেই অনেক দিন আগে চালু আছে্ কেউ দেরি করলে জরিমানা দিতে হয়। অনেক দলে এভাবে জমা হওয়া টাকা দিয়ে সকলে সবাই মিলে ডিনারে যাওয়ার রীতিও আছে। তবে বিশেষ ধরনের ‘জাম্পসুট’ পরিয়ে পুরো যাত্রাপথে নিয়ে যাওয়াটা নতুন। জানা গেছে, মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের ডিরেক্টরস টিম বেশ কয়েকটি পোশাক আগে থেকে বানিয়ে রেখেছে, যাতে দেরি করা ক্রিকেটারদের বিশেষ ভাবে ‘অভ্যর্থনা’ জানানো যায়!