প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:    কোটি মানুষের মন জয় করে এবার মায়ের কোলে ফিরছেন গিটারিস্ট আইয়ুব বাচ্চু। তার শেষ ঠিকানা হচ্ছে- চট্টগ্রামের এনায়েতবাজারের পারিবারিক কবরস্থানে। মায়ের কবরেই শায়িত হবেন তিনি।

 

 

 

১৯৬২ সালের ১৬ আগস্ট এই এনায়েতবাজারেই আইয়ুব বাচ্চুর জন্ম। এ গ্রামের মাটিতেই বেড়ে ওঠা তার।তার জানাজার বিষয়ে সাংস্কৃতিক জোটের নেতারা জানান, আগামীকাল শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টায় সর্বসাধারণের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য আইয়ুব বাচ্চুর মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে জাতীয় শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে।

 

 

 

 

সেখান থেকে জুমার নামাজের সময় নিয়ে যাওয়া হবে জাতীয় ঈদগাহ মাঠে। বাদ জুমা প্রথম জানাজা শেষে মরদেহ রাখা হবে স্কয়ার হাসপাতালের হিমাগারে। একই দিন রাতে অস্ট্রেলিয়া থেকে আইয়ুব বাচ্চুর মেয়ে রাজকন্যা ঢাকায় পৌঁছলে মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে চট্টগ্রামের এনায়েতবাজারে।

 

 

 

 

ধারণা করা হচ্ছে, শনিবার সকাল নাগাদ আরেকটি জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে মায়ের কবরেই সমাহিত করা হবে আইয়ুব বাচ্চুকে, জানান ওই নেতারা।

 

 

 

 

 

উল্লেখ্য, ব্যান্ড সংগীতের কিংবদন্তি এ শিল্পী বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা ৫৫ মিনিটে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে মারা যান। তার বয়স হয়েছিল ৫৬ বছর।