নওগাঁ প্রতিনিধিঃ নওগাঁ জেলার ১১টি উপজেলায় মোট সরিষা চাষ হয়েছে ২৯ হাজার ২৬৫ হেক্টর জমিতে। কৃষি বিভাগের মতে এ বছর সরিষার ভাল আবাদ হয়েছে যা থেকে বাম্পার ফলন আশা করা যাচ্ছে। এখন জেলার চারিদিকে কেবলই সরিষার হলুদ রাঙা মাঠ। কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মনোজিত কুমার মল্লিক জানান, এ বছর জেলায় বারী-৯, বারী-১৪, বারী-১৫, এস এম-৭৫, টরি-৭ এবং সম্পদ জাতের সরিষার আবাদ করেছেন কৃষকরা।

উপজেলাভিত্তিক সরিষা আবাদের পরিমান হচ্ছে সদর উপজেলায় ১ হাজার ৫শ’ হেক্টর, রানীনগর উপজেলায় ২ হাজার ৯৫০ হেক্টর, আত্রাই উপজেলায় ৩ হাজার হেক্টর, মহাদেবপুর উপজেলায় ১ হাজার ৭৫ হেক্টর, বদলগাছি উপজেলায় ৭২০ হেক্টর, ধামইরহাট উপজেলায় ১ হাজার ৩৯০ হেক্টর, পত্নীতলা উপজেলায় ৪ হাজার ১হেক্টর, পোরশা উপজেলায় ২ হাজার ৫০ হেক্টর, সাপাহার উপজেলায় ২ হাজার ৭৫০ হেক্টর, নিয়ামতপুর উপজেলায় ৩ হাজার ৫৩০ হেক্টর এবং মান্দা উপজেলায় ৬ হাজার ২শ’ হেক্টর জমিতে সরিষার আবাদ হয়েছে। চলতি বছর প্রতি হেক্টর জমি থেকে ১ দশমিক ২৯ মেট্রিকটন সরিষা উৎপাদিত হবে বলে কৃষি বিভাগ প্রত্যাশা করছে।

এই হিসেবে নওগাঁ জেলায় এ বছর মোট ৩৭ হাজার ৭৫১ দশমিক ৮৫ মেট্রিক টন সরিষা উৎপাদনের সম্ভাবনা রয়েছে। স্থানীয় কৃষি বিভাগ সরিষা চাষে উৎসাহিত করতে সরকারী ভাবে প্রদত্ত প্রনোদনা হিসেবে ইউরিয়া সার, বীজ ইত্যাদি বিনামুল্যে বিতরন করা হয়েছে। কৃষি বিভাগের হিসাব অনুযায়ী জেলায় মোট ১৬০টি প্রদর্শনী ক্ষেতে ১৬০ বিঘা জমির ওপর এই প্রনোদনা প্রদান করা হয়েছে। এছাড়াও অসংখ্য মধু সংগ্রহকারীরা সরিষা ক্ষেতের পাশে বিশেষ বাক্স স্থাপন করে সেখান থেকে মধু সংগ্রহ করছেন।