প্রথমবার্তা,প্রতিবেদকঃ   চট্টগ্রাম কারাগারের সাবেক জেলার সোহেল রানা বিশ্বাসকে জামিন দেননি হাইকোর্ট। তবে তাঁকে কেন জামিন দেওয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করা হয়েছে। গতকাল বুধবার বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি কে এম হাফিজুল আলমের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আদালত সূত্র জানায়, হাইকোর্টে সোহেল রানার পক্ষে আইনজীবী ছিলেন মো. আদনান রফিক। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল এ কে এম আমিন উদ্দিন মানিক ও সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল হেলেনা বেগম চায়না। দুদকের পক্ষে ছিলেন এ কে এম ফজলুল হক।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

গত বছর ২৭ অক্টোবর ভৈরব রেলওয়ে স্টেশনে ময়মনসিংহগামী বিজয় এক্সপ্রেস ট্রেনের একটি বগি থেকে চট্টগ্রাম কারাগারের জেলার সোহেলকে একটি ব্যাগসহ গ্রেপ্তার করা হয়। তাঁর ব্যাগ থেকে ৪৪ লাখ ৪৩ হাজার টাকা, আড়াই কোটি টাকার তিনটি ব্যাংক এফডিআর, এক কোটি ৩০ লাখ টাকার তিনটি ব্যাংক চেক, পাঁচটি চেক বই ও ১২ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করা হয়। পরে তাঁর বিরুদ্ধে ভৈরব রেলওয়ে থানায় মানি লন্ডারিং ও মাদক আইনে পৃথক দুটি মামলা করে রেলওয়ে পুলিশ।এ ঘটনার আগে সোহেল রানা কারাগারে মাদক ব্যবসাসহ শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে বরখাস্ত হয়েছিলেন। চাকরি চলে গেলে তিনি বিভাগীয় মামলায় আপিল করে ক্ষমা চেয়ে চাকরি ফিরে পান।