প্রথমবার্তা,প্রতিবেদকঃ   লক্ষ্মীপুরের রায়পুর ও রামগতিতে পৃথক অভিযান চালিয়ে আগ্নেয়াস্ত্রসহ তিন যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এ সময় তাদের কাছ থেকে একটি এলজি, একটি একনলা দেশি বন্দুক, ৯টি কার্তুজ এবং তিনটি রামদা উদ্ধার করা হয়েছে।এ ঘটনায় আটকদের বিরুদ্ধে রায়পুর ও রামগতি থানায় অস্ত্র আইনে পৃথক মামলা দায়ের করা হয়েছে। রামগতি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আরিচুল হক ও রায়পুর থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) গোলাম মোস্তাফা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

পুলিশ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গতকাল বৃহস্পতিবার (১০ জানুয়ারি) রাতে রামগতি উপজেলার চরগাজী ইউনিয়নের হাজিরহাট এলাকা থেকে অস্ত্রসহ জুয়েল রানা দাস (২২) ও মো. জুয়েলকে (১৪) গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে একটি একনলা দেশি বন্দুক, ৯টি কার্তুজ ও তিনটি রামদা উদ্ধার করা হয়।রানা নোয়াখালীর চর বাগুয়া গ্রামের কৃষ্ণ চন্দ্র দাসের ছেলে ও জুয়েল একই গ্রামের মাকছুদ হাওলাদারের ছেলে।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

এদিকে, একইদিন রাতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে রায়পুর উপজেলার রাখালিয়া বাজারের একটি দোকান থেকে অস্ত্রসহ মাদ্রাসাছাত্র রাকিব হোসেন রাব্বিকে (১৮) গ্রেপ্তার করে। তার কাছ থেকে একটি এলজি উদ্ধার করা হয়।রাব্বি রায়পুর পৌরসভার দেনায়েতপুর গ্রামের সর্দার বাড়ির মৃত হানিফ মিয়ার ছেলে। তিনি রায়পুর কামিল মাদ্রাসার দাখিল পরীক্ষার্থী।