প্রথমবার্তা,প্রতিবেদকঃ   ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) ও হল সংসদ নির্বাচনের জন্য খসড়া আচরণবিধি প্রস্তুত করা হয়েছে। ইতোমধ্যে খসড়াটি ক্রিয়াশীল ছাত্র সংগঠনগুলোর কাছে পৌঁছে দেয়া হয়েছে; যেন শনিবারের মধ্যে খসড়া সম্পর্কে নিজ নিজ সংগঠনের মতামত দেয়া হয়।আচরণবিধি প্রণয়ন কমিটির আহ্বায়ক ও প্রো-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ড. নাসরীন আহমাদের নেতৃত্বাধীন কমিটি এ খসড়া আচরণবিধি প্রস্তুত করেছে। আচরণবিধিটি ১৪টি ধারায় বিভক্ত৷

 

 

 

খসড়া আচরণবিধিতে রয়েছে- মনোনয়নপত্র সংগ্রহ ও দাখিলের সময় কোনো মিছিল বা শোভাযাত্রা করা যাবে না; প্রার্থী পাঁচজনের বেশি সমর্থক নিয়ে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ ও জমা দিতে পারবেন না; কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী বা তার পক্ষে মনোনয়নপত্র জমা, প্রত্যাহার বা নির্বাচনী প্রচারণায় কোনো ধরনের যানবাহন, মোটরসাইকেল ও মোটরযান সহকারে শোভাযাত্রা, শোডাউন বা মিছিল করা যাবে না; প্রার্থী তালিকা চূড়ান্ত হওয়ার দিন থেকে নির্বাচনের দিনের ২৪ ঘণ্টা আগ পর্যন্ত প্রচার চালানো যাবে; প্রচারের সময়সীমা প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত; ডাকসু ও হল সংসদ নির্বাচনের ভোটার বা প্রার্থী ছাড়া অন্য কোনো খ্যাতিমান ব্যক্তিত্ব, রাজনীতিবিদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও কর্মকর্তা-কর্মচারীরা কোনোভাবেই কোনো প্রার্থীর পক্ষে বা বিপক্ষে বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় প্রচার চালাতে পারবেন না; কোনো প্রার্থী বা তার পক্ষে কোনো সভা-সমাবেশ ও শোভাযাত্রা করতে চাইলে দিন,সময় ও স্থান উল্লেখপূর্বক সংশ্লিষ্ট রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছ থেকে লিখিত অনুমতি নিতে হবে।

 

 

 

 

এ ধরনের অনুমতি লিখিত আবেদন প্রাপ্তির সময়ের ক্রমানুসারে দেয়া হবে; সভা-সমাবেশ ও শোভাযাত্রা করার অনুমতি অন্তত ৪৮ ঘণ্টা আগে নিতে হবে; এক প্রার্থী বা একটি প্যানেলের পক্ষে প্রতিটি হলে একটি এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে তিনটি প্রজেকশন মিটিং করা যাবে; কোনো প্রার্থী বা তার পক্ষে কোনো ছাত্রসংগঠন হলের ভেতরে বা ক্যাম্পাসে প্রধান রিটার্নিং কর্মকর্তা বা রিটার্নিং কর্মকর্তার অনুমোদিত স্থান ছাড়া অন্য কোথাও কোনো সভা-সমাবেশ ও শোভাযাত্রা করতে পারবে না; বিশ্ববিদ্যালয়ের ভেতর চলাচলে বিঘ্ন সৃষ্টি করতে পারে এমন সড়কে জনসভা-পথসভা বা সমাবেশ এমনকি কোনো মঞ্চ তৈরি করা যাবে না;

 

 

 

 

পাঠদান বা পরীক্ষা-কার্যক্রম ব্যাহত হতে পারে এমন কোনো স্থানে সভা-সমাবেশ বা নির্বাচনী প্রচারণা করা যাবে না; শ্রেণিকক্ষে ও বারান্দায় মিছিল করা যাবে না; কোনো ধর্মীয় উপাসনালয়ে কোনো প্রকার নির্বাচনী প্রচার চালানো যাবে না; বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে দুপুর ২টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত এবং আবাসিক হলে কেবল মিলনায়তনে বিকেল ৫টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত মাইক ব্যবহার করা যাবে; প্রতিপক্ষের সভা-সমাবেশ, শোভাযাত্রা এবং অন্যান্য প্রচারাভিযান ব্যাহত বা পণ্ড হতে পারে বা গোলযোগ সৃষ্টি হতে পারে এমন কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করা যাবে না; নির্বাচনী প্রচারে কোনো প্রার্থী নিজের ছবি ছাড়া অন্য কারো ছবি বা প্রতীক লিফলেট বা হ্যান্ডবিল ব্যবহার করতে পারবেন না৷

 

 

 

 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) ও হল সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১১ মার্চ।