প্রথমবার্তা,প্রতিবেদকঃ  ওবায়দুল কাদেরের শারীরিক অবস্থা ক্রমাগত উন্নতির দিকে। দুপুরে মেডিকেল বোর্ড বসে সিদ্ধান্ত নেবে বিদেশে নেয়া হবে কি না বা পরবর্তী করণীয় কী হবে।সোমবার সকাল ১১টার পর ওবায়দুল কাদেরের শারীরিক অবস্থা নিয়ে বঙ্গবন্ধু মেডিকেলে ব্রিফিংয়ে এসব কথা বলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবউল আলম হানিফ।তিনি বলেন, এছাড়া ভারতের প্রখ্যাত হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ দেবী শেঠি আসছেন দুপুরে। তিনিও এসে তাকে দেখে পরামর্শ দেবেন পরবর্তী করণীয় সম্পর্কে।

 

 

 

 

এর আগে রোববার ফজরের নামায শেষে হঠাৎ করেই ওবায়দুল কাদেরের শ্বাস-প্রশ্বাসে সমস্যা দেখা দেয়। এরপর তাকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

 

 

 

 

সেখানে এনজিওগ্রাম করা হলে ওবায়দুল কাদেরের হার্টে তিনটি চেম্বার ব্লক ধরা পড়ে। জরুরি ভিত্তিতে একটিতে আমেরিকান সেনারজি কোম্পানির একটি রিং পরিয়ে কৃত্রিম শ্বাস-প্রশ্বাস দেয়া শুরু হয়।সর্বশেষ বিকেলে তার চিকিৎসার বিষয়ে ব্রিফ করে আপডেট জানান বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি কনক কান্তি বড়ুয়া ও কার্ডিওলজি বিভাগের চেয়ারম্যান সৈয়দ আলী আহসান।তারা বলেন, ‘ওবায়দুল কাদের অল্প অল্প সাড়া দিচ্ছেন। কিন্তু, এখনও তিনি সঙ্কটাপন্ন। দেশবাসী তার জন্য দোয়া করবেন।’

 

 

 

 

 

 

ওবায়দুল কাদেরের অসুস্থতার খবর পেয়ে বিকেলে হাসপাতালে ছুটি যান রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীসহ আওয়ামী লীগ ও বিভিন্ন দলের শীর্ষনেতারা।