প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:   চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে খেলা চলছিল। সালাহ, কেন-রা দেখে থেমেই গিয়েছিলেন। অনেক দর্শকেরই মুখ হাঁ! কপালে চোখ ঠেকে যাওয়ার জোগাড়! আসলে মাদ্রিদের ফাইনাল চলাকালীন-ই মাঠে ঢুকে পড়লেন এক স্বল্পবসনা সুন্দরী। তাঁকে নিয়ে রীতিমতো গলদঘর্ম দশা সুরক্ষার দায়িত্বে থাকা কর্মকর্তাদের।

 

 

 

 

শনিবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ফাইনালে মেট্রোপলিটানো স্টেডিয়ামে খেলা ছিল লিভারপুল বনাম টটেনহ্যামের। সেই ম্য়াচেই অনুপ্রবেশ সুইম স্যুট সুন্দরীর। খেলা বন্ধ হয়ে গেল আচমকাই।

 

 

 

 

পরে জানা যায়, ওই সুন্দরীর সাকিন ঠিকানা! তিনি রাশিয়ান মডেল। নাম কিনসে ওলানস্কি। তাঁর পরণে ছিল কালো সুইম স্যুট। সেই পোশাকেই সাদা অক্ষরে লেখা ‘ভাইটালি আনসেন্সর্ড’! কিনসের রাশিয়ান আমেরিকান বয়ফ্রেন্ড ভিতালি জরোভোটস্কি একটি পর্ণ ওয়েবসাইট লঞ্চ করেছেন কিছুদিন আগেই। আদতে ইউটিউবার হলেও জরোটভস্কি নিজের ক্যারিয়ারে দিক বদল করেছেন পর্ণ ওয়েবসাইট তৈরির মাধ্যমে।

 

 

 

 

 

সেই ওয়েবসাইটের প্রমোশনের জন্যই নাকি কালো উত্তেজক পোশাকে মাঠে ছুটে বেড়ালেন বান্ধবী কিনসে! তবে ঘটনা এখানেই শেষ নয়। এর আগে স্বয়ং জরোটভস্কি নিজেই ২০১৪ সালের ফাইনালে মাঠে ঢুকে পড়েছিলেন।

 

 

 

 

 

সেই সময় তাঁর বুকে লেখা ছিল ‘ন্যাচারাল বর্ন প্র্যাংকস্টার’। কিনসের ইনস্টাগ্রাম ঘাঁটলে দেখা যায় তিনি নিয়মিত তাঁর উত্তেজক ছবি পোস্ট করে থাকেন অ্যাকাউন্ট থেকে। ফলোয়ারের সংখ্যা ৩ লাখ ছাড়িয়ে।

 

 

 

 

 

বয়ফ্রেন্ড ভিতালি জরোটভস্কি-র ‘ভাইটালি আনসেন্সর্ড’ নামের ইউটিউব চ্যানেলের ভিউয়ার সংখ্যা ১.৬ বিলিয়ন।যাইহোক, মাঠে ঢুকে পড়লেও কিনসেকে নিরাপত্তারক্ষীরা বের করে দেন। আর বান্ধবীর এমন কীর্তির পরে ভিতালি জরোটভস্কি জানিয়েছেন, তিনি তাঁর জন্য গর্বিত! ‘তোমাকে শীঘ্রই বিয়ে করছি।’