প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট :    মেয়ে সারা আলি খানকে বলিউডে আসতে নিষেধ করেছিলেন তাঁর বাবা সাইফ আলি খান। বাবার নিষেধ না শুনেই বলিউডের পথে পা বাড়িয়েছিলেন তিনি। মেয়ের এমন সিদ্ধান্তে খানিকটা মনঃক্ষুণ্ণ হয়েছিলেন সাইফ।

 

 

 

 

 

বাবার কথা না শুনে এবার ভালোই বিপদে পড়েছেন সারা। সারার বিরুদ্ধে চুক্তিভঙ্গের মামলা করেছে বলিউডে নিজের প্রথম ছবি হিসেবে চুক্তিবদ্ধ হওয়া প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান দ্য স্কাই পিকচার্স।

 

 

 

 

আর মেয়ের এমন বিপদে আর চুপ করে বসে থাকতে পারেননি তিনি। মেয়েকে বিপদ থেকে উদ্ধার করতে এগিয়ে এসেছেন তিনি।

 

 

 

 

 

টাইমস অব ইন্ডিয়ার খবরে প্রকাশ, বলিউডে নিজের প্রথম কাজ হিসেবে অভিষেক কাপুরের প্রযোজনায় ‘কেদারনাথ’ ছবিতে চুক্তিবদ্ধ হয়েছিলেন সারা।

 

 

 

 

নানা জটিলতায় ‘কেদারনাথ’-এর কাজ আটকে গেলে তিনি চুক্তিবদ্ধ হন করণ জোহর প্রযোজিত ‘সিমবা’ ছবিতে। এরই মধ্যে শুরু হয়ে গেছে ‘সিমবা’র শুটিং।

 

 

 

 

 

ফলে চলতি জুন মাস পর্যন্ত কোনো শিডিউল নেই সারার। এদিকে জটিলতা কাটিয়ে মে থেকে জুনের ৫ তারিখে মধ্যে শুরু হতে যাচ্ছে ‘কেদারনাথ’-এর শুটিং।

 

 

 

 

 

সারাকে শুটিংয়ের কথা জানালে তাঁর এজেন্ট জানান জুন পর্যন্ত ব্যস্ত রয়েছেন সারা। ফলে চুক্তিভঙ্গের দায়ে সারার বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করে অভিষেক কাপুরের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান দ্য স্কাই পিকচার্স। ক্ষতিপূরণ হিসেবে দাবি করা হয়েছে পাঁচ কোটি রুপি।

 

 

 

 

 

ফেঁসে যাওয়া মামলা থেকে উদ্ধার করতে এগিয়ে এসেছেন সাইফ। কথা বলেছেন অভিষেক কাপুরের সঙ্গে। সাইফ চাইছেন আদালতের বাইরে কোনোভাবে মীমাংসা করা হোক এ ঘটনার। মধ্যস্থতাকারী হিসেবে তিনি ডেকেছেন ‘সিমবা’ ছবির বর্তমান প্রযোজক করণ জোহরকে।

 

 

 

 

 

 

বর্তমানে ‘সিমবা’ ছবির কাজে ব্যস্ত রয়েছেন সারা। ছবিতে তাঁর বিপরীতে অভিনয় করছেন রণবীর সিং। ছবিটি পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছেন রোহিত শেঠি। চলতি বছরের শেষের দিকে ছবিটির মুক্তি পাওয়ার কথা রয়েছে।