প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক: সাবেক যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী ও বিএনপি’র স্থায়ী কমিটির সদস্য সালাহউদ্দিন আহমেদের বেকসুর খালাসের বিরুদ্ধে ভারতের শিলং জেলা ও দায়রা জজ আদালতে আপিল করেছে রাষ্ট্রপক্ষ।

 

 

 

নিম্ন আদালত থেকে খালাস রায়ের পরও গত ছয় মাস ধরে ছাড়পত্রের অপেক্ষায় ভারতের মেঘালয় রাজ্যের শিলং শহরে অবস্থান করছিলেন তিনি। রাষ্ট্রপক্ষ আপিল করার বিষয়টি সালাহউদ্দিন আহমেদ জানতেন না।

 

 

 

 

 

তিনি মানবজমনিকে জানান, গত ২৭ শে এপ্রিল আমি আপীল আদালতের নোটিশ পেয়েছি। নোটিশ পেয়ে গতকাল ১লা মে বুধবার সালাহউদ্দিন আহমেদ আপিল আদালতে হাজির হই। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, সালাহউদ্দিন আহমেদ এর কৌসুলি বা তাকে রাষ্ট্রপক্ষেও কৌসুলি আপিল করার বিষয়ে অবহিত করেননি।

 

 

 

 

 

 

আপিলের বিষয়ে অবহিত করা হলে আপিল মামলাটি শিলং জেলা ও দায়রা জজ আদালতে দায়েরের গ্রহনযোগ্যতা নিয়ে উভয়পক্ষের শুনানি হতে পারতো। এর আগে ২০১৮ সালের ২৬ অক্টোবর অবধৈ অনুপ্রবেশ মামলার রায়ে বেকসুর খালাস পান সালাহউদ্দিন আহমেদ। তিনি জানান, বহুমূখী ষড়যন্ত্রের কবলে পড়ে আমাকে প্রবাস জীবন কাটাতে বাধ্য করা হচ্ছে।আপিল মামলাতেও আমি লড়ে জিতবো।