প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক: ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ মোকাবেলায় সোনাগাজী উপজেলার ৩৮টি ঘূর্ণিঝড় আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত রাখা হয়েছে। পাশাপাশি উপজেলার সব সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ছুটি বাতিল করেছেন উপজেলা প্রশাসন।উপজেলা প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধিদের নিয়ে ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ মোকাবেলায় প্রস্তুতিসভায় এ তথ্য জানানো হয়।

 

 

 

 

 

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে সোনাগাজী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. সোহেল পারভেজের সভাপতিত্বে প্রস্তুতিসভায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সোনাগাজী পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট রফিকুল ইসলাম খোকন, সোনাগাজী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. নুরুল আলম, আমিরাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান জহিরুল আলম, চরচান্দিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মোশারফ হোসেন মিলন, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোহাম্মদ নোমানসহ উপজেলার বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা- কর্মচারীদের ও বেসরকারি সংস্থার প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

 

 

 

 

 

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সোহেল পারবেজ বলেনন, ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ মোকাবেলায় সোনাগাজীর ৩৮টি ঘূর্ণিঝড় আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত রাখা হয়েছে। উপজেলায় একটি নিয়ন্ত্রণকক্ষ খোলা হয়েছে এবং ১৪টি চিকিৎসকদল প্রস্তুত রাখা হয়েছে।

 

 

 

 

 

 

তিনি জানান, সব সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ছুটি বাতিলসহ রেড ক্রিসেন্ট, ফায়ার সার্ভিস ও বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থার স্বেচ্ছাসেবকদের প্রস্তুত থাকতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।