প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক: রাসুল (সা.) সম্পর্কে অশালীন ভাষায় কটূক্তি করায় কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়ায় মফিজ উদ্দিন (৫৫) নামের এক চা বিক্রেতাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। পরে আজ সকালে বিক্ষুব্ধ জনতার রোষানলে পড়া ওই চা বিক্রেতাকে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে এক বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করা হয়।

 

 

 

 

জানা যায়, গতকাল বুধবার রাতে পৌরবাজারের পাটমহালে অবস্থিত তার নিজ চায়ের দোকান থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে পাকুন্দিয়া থানা পুলিশ। সে পৌর এলাকার হাপানিয়া গ্রামের মৃত আবদুল মালেকের ছেলে। এ সময় কটূক্তির প্রতিবাদে ওই চা বিক্রেতার বিচার চেয়ে বিক্ষোভ মিছিল করে আলেম সমাজ ও এলাকাবাসী।

 

 

 

 

 

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, মফিজ উদ্দিনের চায়ের দোকানে বুধবার (১ মে) দিবাগত রাত সাড়ে ১০টার দিকে চা খেতে আসা লোকজনের মধ্যে ধর্ম বিষয়ে আলোচনা চলছিল। এ সময় মফিজ উদ্দিন ক্ষিপ্ত হয়ে রাসূল (সা:) কে উদ্দেশ্য করে বাজে মন্তব্য করেন। এ সময় উপস্থিত একজন তার এ বক্তব্যটির ভিডিও ধারণ করে। নবী (সা.) কে নিয়ে এমন অশালীন বক্তব্যের ভিডিও এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে ক্ষোভে ফেটে পড়ে ধর্মপ্রাণ মুসলিম জনতা। ওই রাতেই তারা মফিজ উদ্দিনের চায়ের দোকানের সামনে উপস্থিত হয়ে তার বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ করতে থাকে।

 

 

 

 

খবর পেয়ে পাকুন্দিয়া থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে মফিজ উদ্দিনকে গ্রেপ্তার করে থানায় নিয়ে আসে। আজ বৃহস্পতিবার সকালে বিক্ষুব্ধ আলেম সমাজ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ইলিয়াস ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ মোকলেছুর রহমানের কার্যালয়ে উপস্থিত হয়ে কটূক্তিকারী মফিজ উদ্দিনের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি জানান। পরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মোকলেছুর রহমান ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে মফিজ উদ্দিনের কটূক্তির ভিডিও ফুটেজ দেখে ও তার স্বীকারোক্তি নিয়ে থানার ওসি মোহাম্মদ ইলিয়াস ও আলেম সমাজের উপস্থিতিতে মফিজ উদ্দিনকে এক বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ডাদেশ দেন।

 

 

 

 

 

ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ মোকলেছুর রহমান বলেন, ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হানার অভিযোগে দণ্ডবিধি ১৮৬০ এর ২৯৮ ধারায় কটূক্তিকারীকে এক বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।  পাকুন্দিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ইলিয়াস বলেন, রাসুল (সা.) কে কটূক্তি করার দায়ে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে দণ্ডপ্রাপ্ত মফিজ উদ্দিনকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।