প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:   নিজেকে দ্রুত গুছিয়ে নিতে আয়না খুঁজছিলেন পথচলতি এক তরুণী। পথের চারদিকে তাকিয়ে একটি গাড়ির বন্ধ জানালার কাঁচকেই পছন্দ হয় তার। দ্রুত সেখানেই যান তিনি। কিন্তু পথের ধারে দাঁড়িয়ে থাকা গাড়িতে যে মানুষ রয়েছে, তা কল্পনাতেও আনেননি। তাই নিজেকে গুছিয়ে নিতে গাড়ির কাঁচকে আয়না হিসেবে ব্যবহার করতে থাকেন ওই তরুণী।

 

 

 

 

এদিকে, গাড়ির ভেতরে থাকা মানুষটি নিছক মজার জন্যই মুঠোফোনে সেই তরুণীর কাণ্ড-কারখানা ধারণ করতে থাকেন। তবে সাজগোজের বহরে নিজেকে আর লুকিয়ে রাখতে পারেননি ভিডিও ধারণকারী।জানালার কাঁচ নামাতেই প্রথমে চমকে ওঠেন তরুণী। এরপর মানে মানে কেটে পড়েন। সেই সময়ে তরুণীর চেহারা হয়েছিল দেখার মতো।

 

 

 

 

 

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম মিরর জানায়, ভিয়েতনামের হো চি মিন শহরে সম্প্রতি ঘটনাটি ঘটেছে। গাড়ির আরোহী পরে সেই ভিডিও ইউটিউব ও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রকাশ করলে তা ভাইরাল হয়ে যায়।

 

 

 

 

অনেকেই সেই তরুণীর নির্বুদ্ধিতা নিয়ে মজা করেন। বলেন, জানালার অপারে কেউ যে থাকতে পারে সে সম্পর্কে তরুণীর আগেই সচেতন থাকা উচিৎ ছিল।

 

 

 

 

কেউ কেউ আবার বলেন, ওই তরুণী কিভাবে নিজেকে সাজিয়ে থাকেন তা আজ জানা গেলো। কারও মতে, এরপর আয়না সম্পর্কে তরুণী অবশ্যই সচেতন থাকবেন।