প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:চাকার পা দিয়ে হেঁটে বেড়াচ্ছে কচ্ছপ। বিষয়টি প্রথমে বিশ্বাসযোগ্য মনে না হলেও আসল ঘটনা জানার পার অবশ্যই বিশ্বাস করতে পারবেন। পেদ্রো নামের ১৫ বছর বয়সী একটি বক্স কচ্ছপের নেই পিছনের দু’টি পা। তাই কোনো মতে সামনের পা দিয়ে এদিক-ওদিক যাওয়ার চেষ্টা করতো সে। কিন্তু ভালো পারত না।

 

তাই চিকিৎসা বিজ্ঞানের সহায়তায় ও সান্দ্র ট্রেলর নামের এক মহিলার উদ্যোগে ‘বিশেষ পা’ বা চাকার পা পেল পেদ্রো। তার পর থেকে সেই ওই ‘পা’ ব্যবহার করে হেঁটে চলে বেড়াচ্ছে।

 

 

পেদ্রোর পায়ের ওই অবস্থা দেখে তার মালিক সান্দ্র ট্রেলর তাকে নিয়ে যান লুইজিয়ানা স্টেট ইউনিভার্সিটি ভেটেনারি টিচিং হাসপাতালে। সেখানের চিকিৎসকরা পেদ্রোর জন্য বিশেষ ব্যবস্থার পরিকল্পনা করেন। তার পরই পায়ের বদলে পেদ্রোর পিছনের দিকে লাগিয়ে দেওয়া হয় দু’টি চাকা। সেই চাকার সাহায্যে এখন দিব্যি হেঁটে বেড়াচ্ছে পেদ্রো।

 

 

হাসপাতালের কমিউকেশন ম্যানেজার জিঞ্জার গাটনার জানান, পেদ্রোর কোনো শারীরিক সমস্যা নেই। ওর শুধু পিছনের পা ছিল না। সেই সমস্যা এখন সমাধান হয়ে গেছে।

এই বিভাগের আরো খবর :

প্রয়োজন না থাকলে পুঁজিবাজার বন্ধ করে দেয়া হোক
ফেরত পাঠানো হবে এক কোটি বাংলাদেশি মুসলিমকে: দিলীপ ঘোষ
বিজেপিকে হঠানোর মন্ত্র দিলেন মমতা
ইরানের সঙ্গে পরমাণু চুক্তি বাতিলের ফলে যুদ্ধের হুঁশিয়ারি মের্কেলের
গম্ভীর গাভাস্কারকে খোঁচা মারলেন
খুব ভালোবাসেন; তাই অভ্যাসটা ছাড়তে পারেননি ওয়ার্নার...
সুবর্ণচরে ধর্ষণের ঘটনায় জড়িতদের বিচার করতে হবে
প্রসব বেদনা সহ্য করতে না পেরে, নিজের সিজার নিজেই করেছিলেন
তামাকচাষীদের অন্য ফসল উৎপাদনে উৎসাহের উদ্যোগ
১১০ দিন পর গুম হওয়া কোটচাঁদপুরের কলেজ ছাত্রকে চোখ বেধে ফেলে গেছে
কুরআন শরীফের কসম করা যাবে কি?
আমাদের আন্দোলন অবশ্যই সফল হবে : ড. কামাল
শীতার্তদের মাঝে পৌর মেয়রের কম্বল বিতরণ
বিব্রত কমিশন: সিইসি
নির্বাচনে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে !