প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক:ইরানের তেলবাহী জাহাজ আটক করার পর থেকে ভয়ে ভয়ে আছে যুক্তরাজ্য। কারণ, নিজেদের তেলবাহী জাহাজ আটকের প্রতিশোধ নেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন ইরানের রেভ্যুলেশন গার্ডের একজন কর্মকর্তা।

 

 

 

 

সেই ভয়ে যুক্তরাজ্যের সরকারি তেল কোম্পানির একটি জাহাজ সৌদি আরব ছেড়ে যাচ্ছে না। জানা গেছে, দ্য ব্রিটিশ হ্যারিটেজ নামের ওই তেলবাহী জাহাজে মোট ১০ লাখ ব্যারেল তেল রয়েছে। ইরাকের বসরা টার্মিনাল থেকে গত ৬ জুলাই তেল নিয়ে যুক্তরাজ্যের উদ্দেশ্যে রওনা হয় জাহাজটি।

 

 

 

 

তবে জাহাজটি সামনের দিকে অগ্রসর না হয়ে সৌদি আরবের বন্দরে গিয়ে নোঙ্গর করেছে। ইরানের টার্গেটে না পড়তেই সৌদিতে অবস্থান নেয়ার ঘটনা ঘটছে বলে জানিয়েছে ব্রিটিশ রাষ্ট্রীয় তেল কম্পানি বিপি।

 

 

 

 

প্রসঙ্গত, চলতি বছরের ১ জুলাই জিব্রাল্টার উপকূলে তেলবাহী জাহাজ আটক করে ব্রিটিশ রাজকীয় নৌবাহিনী। এ ব্যাপারে ব্রিটিশ নৌবাহিনী জানায়, ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে জাহাজটি সিরিয়ার দিকে যাচ্ছিল বলে প্রমাণ পেয়ে সেটা আটক করতে জিব্রাল্টার কর্তৃপক্ষকে সহায়তা করা হয়েছে।

 

 

 

 

এ ব্যাপারে ইরানের সেনাবাহিনীর ঊর্ধ্বতন একজন কর্মকর্তা বলেন, জিব্রাল্টার প্রণালি থেকে আটক করা তেলবাহী জাহাজটি ছেড়ে দেয়া না হলে ইরানি কর্তৃপক্ষের উচিত ব্রিটিশ তেলবাহী জাহাজ আটকে রাখা।

এই বিভাগের আরো খবর :

আমাকে একটি হুইল চেয়ার দিয়ে সহায়তা করুন!
'মিয়ানমারের আসল ঘটনা বেরিয়ে এসেছে'
ঈশাখাঁ কিন্ডারগার্টেন এন্ড স্কুলের বার্ষিক ক্রীড়া
আমিরাত সরকারের অভিনন্দন
জনপ্রিয়তার শীর্ষে ছাত্রলীগ নেতা সবুজ
বন্দুকের নল নয়, আ'লীগ ক্ষমতায় এসেছে গণতন্ত্রের ধারায়: কাদের
বিএফডিসিতে উৎসব মুখর পরিবেশে ভোট চলছে
বঙ্গবন্ধুর স্নেহধন্য অনেকেই আজ হত্যাকারীদের সঙ্গে হাত মিলিয়েছেন: নাসিম
পাসপোর্টের মেয়াদ ১০ বছর হচ্ছে; জেনে নিন পাসর্পোট করার নতুন নিয়ম
পোস্টারে জিয়া পরিবারের ছবি না থাকায় তোপের মুখে সুলতান
যে ৬ আসনে ব্যবহার হবে ইভিএম
ফিলিস্তিনিদের ওপর দখলদার ইহুদিদের হামলা বাড়ছে, জাতিসংঘের উদ্বেগ
যে কারণে ইসির বৈঠক ত্যাগ করলেন কমিশনার মাহবুব
ডাকসুতে ভিপি-জিএস-এজিএস পদে আলোচনায় যারা