প্রথমবার্তা প্রতিবেদক: বাবা বাংলাদেশে শুটিংয়ে ব্যস্ত। তাই এবার বাবার জন্মদিনে কেক কাটা হয়নি। তবে তিনি ফিরলেই কেক কাটা হবে। জানাচ্ছেন ছেলে অর্জুন চক্রবর্তী। বুঝতেই পারছেন ফেলুদা সব্যসাচী চক্রবর্তীর কথাই হচ্ছে।

 

 

 

 

বাবার জন্মদিন প্রসঙ্গে অর্জুন বলেন, ‘‘বাবা একটা ছবির শুটিং করছেন বাংলাদেশে। তাই এবার একসঙ্গে কেক কাটা হয়নি। তবে বাবা কখনই নিজের জন্মদিন বড় করে পালন করার পক্ষপাতী নন। কিন্তু প্রতিবার আমরা এক হয়ে তাঁকে দিয়ে কেক কাটাই। এবার তিনি ফিরলেই সেটা হবে।‘

 

 

 

 

এই প্রথমবার বাবা ও ছোট ছেলে একসঙ্গে অভিনয় করতে চলেছেন। বড়পর্দায় আসছে ‘অভিযাত্রিক: দ্য ওয়ান্ডারলাস্ট অব অপু’। তা নিয়ে ভীষণভাবে উত্তেজিত অর্জুন। তিনি বলেন, ‘‘আমি অপুর চরিত্রে অভিনয় করছি। বাবা অভিনয় করছেন অপুর একজন অ্যাডভেঞ্চারার বন্ধু হিসবে। বেনারসে দু’জনের সঙ্গে আলাপ হয়। আমরা একসঙ্গে বেশ কয়েকটি দৃশ্যে অভিনয় করেছি। আমি এই প্রথমবার বাবার সঙ্গে অভিনয় করার দিকেই তাকিয়ে আছি।’’

 

 

 

 

সাদা-কালো পিরিয়ড মুভি ‘অভিযাত্রিক’ মুক্তি পাচ্ছে মহালয়ার পর। সেই প্রসঙ্গে অর্জুন বলেন, ‘‘অনেকেই আমাকে জিজ্ঞাসা করেছিলেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় করেছেন, এমন একটা কাল্ট চরিত্রে অভিনয় করতে আমি নার্ভাস ছিলাম কিনা। আমি আসলে একটা নতুন গল্পে অভিনয় করছি। ‘অপরাজিত’ যেখানে শেষ হয়েছিল, এই গল্প সেখান থেকে শুরু হয়েছে।

 

 

 

 

 

এটা রিমেক নয়। রিমেক আগে হয়েছে। এই পিরিয়ড ফিল্মটিতে অপু এবং তার ছেলে কাজল থাকবে। বাবা-ছেলে জুটি দুঃসাহসিক কাজ করবে, তাদের সম্পর্ক নতুন মাত্রা পাবে। পরিচালক শুভ্রজিৎ মিত্র ছবিটির জন্য যেভাবে পরিকল্পনা করেছেন, তা আমার ভাল লেগেছে। কাজলের চরিত্রে আয়ুষমান নামে বাচ্চাটি খুবই মিষ্টি। আমরা সবাই যে খুব ভাল কিছু করব, সে ব্যাপারে আমি নিশ্চিত।’’