13 / 100 SEO Score

প্রথমবার্তা প্রতিবেদক: ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় ক্রীড়াবিদদের তালিকায় একেবারে প্রথমের সারিতে উচ্চারিত হয় তার নাম। তার জীবনে নারী সঙ্গের কোনও অভাব নেই। সেকথা বলাই বাহুল্য। কিম কার্দাশিয়ান থেকে বিপাশা বসু। রোনালদোর জীবনে একের পর এক সুন্দরীরা এসেছেন। আর একথাও সর্বজনবিদিত, রোনালদো নারীসঙ্গ বেশ উপভোগ করেন। আর সেকারণেই হয়তো জীবনের সেরা উপভোগ্য মুহূর্ত হিসেবে যৌ নতাকেই এগিয়ে রাখলেন রোনালদো।

 

 

 

 

সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে জীবনের সেরা উপভোগ্য মুহূর্ত নিয়ে কথা বলেছেন রোনালদো। সেখানে তিনি বলেন, ‘আমি অনেক বছর ধরেই গোল করার চেষ্টা করে জীবনে প্রায় ৭০০টা গোল করেছি। কিন্তু, এই অনুভূতি কখনো হয়নি। জর্জিনার সঙ্গে যৌ নতাই জীবনের সেরা উপভোগ্য মুহূর্ত।’

 

 

 

 

জীবনের সেরা গোল কোনটা? এদিনের সাক্ষাৎকারে সে কথাও জানিয়ে দিলেন রোনালদো। সিআর সেভেনের জীবনের সেরা গোল ২০১৮ চ্যাম্পিয়ন্স লিগে করা বাই-সাইকেল কিক। যেটি তিনি রিয়াল মাদ্রিদে থাকাকালীন করেছিলেন বর্তমান ক্লাব জুভেন্টাসের বিরুদ্ধে।

 

 

 

 

এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমি অনেক দিন ধরে চেষ্টা করে ওরকম একটি বাই-সাইকেল কিকে গোল করেছি। যেভাবে জুভেন্টাসের বিরুদ্ধে, বুফোঁর বিরুদ্ধে গোল করেছিলাম, তাও চ্যাম্পিয়ন্স লিগে সেটা সত্যিই সুন্দর। যখন স্টেডিয়াম ভরতি দর্শক উঠে হাততালি দিচ্ছেন তখন খুব ভাল অনুভূতি হচ্ছিল।’

 

 

 

 

পর্তুগাল তথা জুভেন্টাসের তারকা এক সময় ডেট করেছেন ইরিনা শায়কের সঙ্গে। বান্ধবীর তালিকায় ছিল বিপাশা বসুর নামও। একের পর এক লাস্যময়ী নারীদের সঙ্গে মেলামেশা করার পর রোনালদো জানিয়েছেন, জীবনের যাবতীয় গোল করার আনন্দানুভূতির চেয়েও অনেক এগিয়ে জর্জিনার সঙ্গে যৌ নতার অনুভূতি। জর্জিনার সঙ্গে রোনালদোর সম্পর্ক প্রায় ৩ বছরের। ২০১৬ সালে প্রথমবার একসঙ্গে দেখা গিয়েছিল সিআর সেভেন এবং জর্জিনাকে। প্রথমে স্বীকার না করলেও পরে প্রকাশ্যেই প্রেমের কথা স্বীকার করেছেন দু’জনের। এই দম্পতির সন্তানও রয়েছে।