প্রথমবার্তা, রিপোর্ট:        ১১ নভেম্বর বিকাল তিনটায় ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস বাংলাদেশের (ইউল্যাব) সেমিনার রুমে মেয়েদের স্তন ক্যান্সার বিষয়ক সচেতনতা মূলক আলোচনা সভা ‘অ্যাওয়ারনেস অন ব্রেস্টক্যান্সার’ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে প্রধান আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বারডেম হাসপাতালের রেডিওলজি বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ডা: নাজমুন নাহার। তিনি সেখানে আলোচনা করেন স্তন ক্যান্সারের বিভিন্ন পর্যায়ের লক্ষণসমূহ এবং স্তন ক্যান্সার প্রতিরোধে এবং প্রতিকারে কি কি করণীয়। স্তন ক্যান্সার প্রতিরোধে তিনি তিনটি পদক্ষেপের কথা জানান। প্রথমেই জনসচেতনতা তৈরি, দ্বিতীয়ত প্রতিমাসে নিজে নিজেই চেকআপ এবং তৃতীয়ত প্রতি এক বছর অন্তর অন্তর বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ গ্রহণ করা।

 

 

 

 

 

 

 

অধ্যাপক নাজমুন নাহার বলেন, আমাদের দেশে অধিকাংশ স্তনক্যান্সারে আক্রান্ত রোগী মারা যান অসচেতনতার কারণে দেখা যায় তারা ক্যান্সারের শেষ পর্যায়ে ডাক্তারের শরণাপন্ন হন। কিন্তু এ পর্যায়ে একজন ডাক্তারের কিছুই করার থাকেনা তাকে পেলিয়েটিভ কেয়ার করা ছাড়া। তবে এ বিষয়ে যদি সচেতন থাকা যায় এবং প্রাথমিক পর্যায়ে ক্যান্সার ধরা পড়ে তবে এটা সম্পূর্ণরূপে কোন সমস্যা ছাড়াইনির্মূল করা সম্ভব।আলোচনা সভার আয়োজন করেন ইউল্যাব সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার ক্লাব। উপস্থিত ছিলেন ক্লাব উপদেষ্টা সেলিমা কাদের চৌধুরী। তিনি বলেন, আমাদের দেশে ক্যান্সার আক্রান্তের সংখ্যা আশঙ্কাজনক হারে বাড়ছে। নারীদের ক্যান্সার এর মধ্যে ১৫ থেকে ২০ ভাগই স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত এবং তাদের অধিকাংশ’ই এক পর্যায়ে মারা যান। কিন্তু বর্তমান চিকিৎসা পদ্ধতিতে স্তন ক্যান্সার সম্পূর্ণরূপে সারিয়ে তোলা সম্ভব যদি প্রাথমিক পর্যায়ে ধরা পড়ে। তাই আমাদের এই বিষয়ে অধিক সচেতনতা গড়ে তুলতে হবে।

 

 

 

 

 

 

 

অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে ক্লাব উপদেষ্টা প্রধান অতিথির হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন এবং উপস্থিত সকলের মাঝে কিছু হালকা খাবার পরিবেশন করা হয়। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ইউল্যাবের অর্ধশত শিক্ষার্থী এবংইউল্যাব সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার ক্লাবের মেম্বার ও এক্সিকিউটিভ বৃন্দ।