প্রথমবার্তা, নিজস্ব প্রতিবেদক( বিজয় ): রাজধানীর স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটির ছাত্রী রুবাইয়াত শারমিন রুম্পার (২১) সিদ্ধেশ্বরীতে ‘ধর্ষণের’ পর হত্যা করা হয়েছে। গতকাল মরদেহের দাফন সম্পন্ন হয়েছে তাঁর নিজ গ্রামে।

 

 

 

 

এদিকে একমাত্র মেয়েকে হারিয়ে রুম্পার বাবা-মা দুজনই এখন শোকে বিহ্বল। বাবা রুকন উদ্দিন নিজেকে সামলে নিতে পারছেন না কোনো ভাবেই। বার বার ছুটে যাচ্ছেন মেয়ের কবরের পাশে। অসহায় পিতার ঝরে পড়া অশ্রুতে কবরের মাটিও ভিজে উঠছে।

 

 

 

 

শোকের মাতমে ভারী হয়ে উঠছে নিহতের গ্রামের বাড়ীর এলাকা। অন্যদিকে বারবার মূর্ছা যাচ্ছেন রুম্পার মা নাহিদা আক্তার। আর্তনাদ করছেন আর সন্তান হারানোর বেদনায় মুষড়ে পড়েছেন। কান্না যেন থামছেই না।

 

 

 

 

কান্নার শব্দের সাথে সাথে ভেসে আসছে মেধাবী সন্তানের নানা কথা। কখনো চিৎকার করে কাঁদছেন, কখনো কাঁদতে কাঁদতে ক্লান্ত হয়ে পড়ছেন। কিছু বলতে চেয়েও যেন পারছেন না। হঠাৎ হঠাৎ চিৎকার দিয়ে বলে উঠলেন, ‘তোরা এত্ত খারাপ’ তোদের মনে মায়া দয়া নেই।

 

 

 

 

 

তোরা কোনো মায়ের পেট থেকে পড়িসনি।, ‘ রুম্পার মায়ের বুকফাটা এমন হাহাকার গ্রামবাসীর বুকেও যেন হাতুড়ি মারছে। এলাকাবাসী বলছেন, মৃত্যুর পরিণতির প্রতিশব্দ এমনভাবে নাড়া দিয়ে যায়নি।

 

 

 

 

 

 

এ শুধু মৃত্যুই নয়, বাবা-মায়ের আমৃত্যু বুকফাটা যন্ত্রণা। এদিকে রূম্পার হত্যার সাথে জড়িতের চিহ্নিত করে উপযুক্ত বিচারের আওতায় আনার জন্য মানববন্ধন করেছেন স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটির শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

এই বিভাগের আরো খবর :

যারা ভালো খেলে তারা ভালো ওকালতিও করে: বিচারপতি ইমান আলী
পাবনার ঈশ্বরদীতে খেলাঘরের সম্মেলনের উদ্বোধন
রাশিফলে জেনে নিন কেমন যাবে আজকের দিন
বিএনপির ৯ দফা দাবি কৃষকদের দুরবস্থা দূর করতে
বিছানায় মেয়েরাই বেশি ‘নোংরা’
কালকিনিতে পরীক্ষার কেন্দ্র সচিবসহ ২৬ শিক্ষককে অব্যহতি
দুদকের চিঠির পর স্বাস্থ্য অধিদফতরের ২৩ কর্মকর্তাকে বদলি
পঞ্চগড়ের আটোয়ারীতে শতাধীক ঘর পুরে ছাই
অবশেষে ডিনারও হলো
অফিসে এত টাকা রাখার আসল কারণ রেবিয়ে এলো জি কে শামীমের
তারেকের নির্দেশ ডাকসু নিয়ে !
যশোরের নাভারনে সড়ক দূর্ঘটনায় মহিলা এনজিও কর্মী নিহত
রাজাপুরে মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষুধ রাখায় দায়ে দুই প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা, প্রতিবাদে ধর্মঘট
নির্বাচনী প্রচারে শেরপুর যাচ্ছেন ঐক্যফ্রন্ট নেতারা
ইমরান ছক্কা হাঁকিয়েছেন