প্রথমবার্তা, নিজস্ব প্রতিবেদক :  আসন্ন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপির টিকেট নিয়ে লড়বেন অবিভক্ত ঢাকার সর্বশেষ মেয়র সদ্য প্রয়াত বিএনপি নেতা সাদেক হোসেন খোকার ছেলে ইশরাক হোসেন। সেই ইশরাককে নিয়ে বিষ্ফোরক মন্তব্য করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে নিজের ভেরিফাইড আিইডিতে স্ট্যাটাস দিয়েছেন সাবেক ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সিদ্দিকি নাজমুল আলম।

 

 

 

বৃহস্পতিবার ভোর ৪ টায় নাজমুল তার ফেসবুকে দেওয়া নাজমুল আলমের ফেসবুক পোস্টটি পাঠকদের জন্য হুবহু তুলে ধরা হলো। তিনি লিখেছেন- আসল ঘটনা হলো এইটা। ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বিএনপির মেয়র প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেনের সাথে দেখা করেছেন উগ্রবাদী ছাত্র সংগঠন ইসলামী ছাত্রশিবিরের কেন্দ্রীয় সভাপতি সিরাজুল ইসলাম।

 

 

 

সূত্র বলছে, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাসকে নিয়ে মনোনয়ন দাখিল করেন প্রয়াত সাদেক পুত্র ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেন। পরবর্তীতে সাদেক হোসেন খোকা কমিউনিটি সেন্টার-এ বৈঠককালে তার সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় করেছেন শিবির সভাপতি ও সেক্রেটারি জেনারেল সালাহউদ্দিন আইউবীসহ আরো অনেক নেতাকর্মী।

 

 

 

জানা যায়, বিএনপি থেকে ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেনের মনোনয়ন প্রাপ্তিতে শিবির নেতাদের বেশ উচ্ছ্বাসিত দেখাচ্ছিল (মনে হয় দেহে প্রাণ ফিরে পেয়েছে)। সাক্ষাতের সময় শিবির সভাপতি ইশরাককে নিজেদের সমর্থনকারী দলীয় প্রার্থী হিসেবেই নেতাকর্মীদের মাঝে পরিচয় করিয়ে দেন।শিবির সভাপতি সিরাজুল বলেন,‘ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক আমাদের সংগঠনের দীনি ভাই।

 

 

 

ইশরাক ভাই ইতোপূর্বে সংগঠনের অনেক ইউনিটের গোপনীয়তার সহিত দায়িত্ব পালন করেছেন যা অনেকের অজানা। তাই সিটি নির্বাচন নিয়ে শিবির নেতাকর্মীদের তার পাশে থাকার উদাত্ত আহ্বান জানাচ্ছি।’ইঞ্জিনিয়ার ইশরাকের মনোনয়ন প্রসঙ্গে জামায়াত থেকে বহিষ্কৃত নেতা ও ইসলামী ছাত্রশিবিরের সাবেক সভাপতি মজিবুর রহমান মঞ্জু বলেন, অবিভক্ত ঢাকার সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকার ছেলে ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক শিবিরের দায়িত্বশীল নেতা ছিলো বলেই আমি জানি।

 

 

 

 

শিবিরের অনেক প্রশিক্ষণ প্রোগ্রামে আমি ইশরাক হোসেনকে উপস্থিত দেখেছি।ছাত্রশিবিরের সাবেক এই সভাপতি আরো বলেন, আমি ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেনকে ছোট থেকেই ব্যক্তিগতভাবে চিনি। সে স্কলাস্টিকা স্কুলে পড়ার সময় থেকেই শিবিরের রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত ছিলো। সেখানে ‘ও’ লেভেল এবং ‘এ’ লেভেল শেষ করে উচ্চশিক্ষার জন্য ইউনিভার্সিটি অব হার্টফোর্ডশায়ারে (যুক্তরাজ্য) চলে যায়।

 

 

 

 

 

যুক্তরাজ্য থাকাকালে ইশরাক শিবিরের রাজনীতির সাথে জড়িয়ে পড়ে। উচ্চতর ডিগ্রি শেষে বাংলাদেশে ফিরে শিবিরের পরামর্শেই বিএনপির রাজনীতির সাথে নিজেকে সম্পৃক্ত করে। শিবিরের এজেন্ডা বাস্তবায়নই হচ্ছে ইশরাকের মূল লক্ষ্য।”

 

 

এই বিভাগের আরো খবর :

মানসিক চাপ, উদ্বেগ এবং দুঃশ্চিন্তা নিয়ন্ত্রণের ৯টি উপায়
ভারত রপ্তানি বন্ধ রাখায় পেঁয়াজের দাম কমছে না
আজ কি একাদশে থাকবেন মোস্তাফিজ?
তারেক রাজনৈতিক আশ্রয়ে, বিএনপির স্বীকারোক্তি
পারফেক্ট শট আর পারফেক্ট ভিউ-র ভিভো ভি ৯ বাংলাদেশে
বিশ্ব নারী এবং কিডনি দিবস : কিডনিদানেও কিন্তু এগিয়ে নারীরা
কে বলেছে ভারী দেহে শর্টস্ পরতে মানা?
নড়াইল জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ কার্যালয় কর্তৃক মাদকবিরোধী গণসচেতনতাম‚লক কার্যক্রম পরিচালিত
ভেনেজুয়েলা থেকে রাশিয়ায় স্বর্ণ পাচারের অভিযোগ
টানা ৪২ দিন কথা বলেন না যেসব গ্রামের বাসিন্দা
মানুষ মুক্তি চায়, পরিবর্তন চায় : এরশাদ
এফএ সুমনের গানের ভিডিওতে উত্তাপ!
সাত পাকে বাঁধা পড়লেন রাজ-শুভশ্রী
ওয়েবসিরিজের নতুন বৌদি
বর্তমান সরকার মুক্তিযোদ্ধাদের সর্বোচ্চ মর্যাদা দিচ্ছে