প্রথমবার্তা,নিজস্ব প্রতিবেদক:   লাবনী আক্তার ইমু। একটি হত্যা মামলার আসামি। কানের সমস্যাজনিত কারণে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি তিনি। আর সেখানেই পুলিশ ও কারারক্ষীদের সামনে বসে ফুচকা-চিকেন বল খেতে দেখা গেল তাকে। অথচ নিয়ম অনুযায়ী কোনো আসামিকে হাসপাতালে নেওয়া হলেও কারা আইন অনুযায়ী বাইরের খাবার দেওয়া নিষেধ। এমনকি হাসপাতালের খাবারও পরীক্ষা করে তারপর খেতে দেওয়ার নির্দেশ আছে।

 

 

 

গতকাল বুধবার সন্ধ্যার দিকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের জরুরি বিভাগের তৃতীয় তলায় নাক-কান-গলা বিভাগের ৩০৪ নম্বর ওয়ার্ডের ৩ নম্বর বেডে গিয়ে হত্যা মামলার আসামির এভাবে চিকেন বল ও ফুচকা খাওয়ার দৃশ্য দেখা যায়।

 

 

 

 

দেখা যায়, আসামি একটি প্লেটে করে ফুচকা ও চিকেন বল খাচ্ছেন এবং পাশে থাকা ডিএমপির নারী পুলিশ ও কারারক্ষীকে ফুচকা খাওয়ার জন্য অনুরোধ করছেন। এর কিছুক্ষণ পর ছবি তুলতে গেলে হাত দিয়ে নিষেধ করতে থাকেন আসামি লাবনী।

 

 

 

 

এক পর্যায়ে সেখানে থাকা দুই নারী কনস্টেবল ও সুশান্ত নামে এক কারারক্ষীর কাছে জানতে চাওয়া হলে তারা জানান, ওনার মা এনেছে, উনি কি ফুচকা খাবেন না?

 

 

 

 

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ডিউটিরত সহকারী প্রধান কারারক্ষী শেখ মো. কামাল হোসেনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, কাশিমপুর মহিলা কারাগার থেকে কানের সমস্যাজনিত কারণে গত তিন থেকে চারদিন আগে আসামিকে এখানে ভর্তি করানো হয়েছে। চিকিৎসকরা বলছেন তার অস্ত্রোপচার লাগবে।

 

 

 

হাসপাতালের বিছানায় বসে ফুচকা ও চিকেন বল খাওয়ার কথা শুনে ক্ষোভ প্রকাশ করে তিনি বলেন, আমি দ্রুত ওয়ার্ডের দিকে যাচ্ছি। যারা জড়িত তাদের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দিয়ে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

 

 

 

কারারক্ষী শেখ মো. কামাল হোসেন আরও জানান, বাইরের খাবার তো দূরের কথা, হাসপাতালের খাবারও পরীক্ষা করে আসামিদের খাওয়ানোর নির্দেশ আছে।

 

 

 

 

এদিকে কাশিমপুর নারী কারাগারের জেলার আনোয়ার হোসেনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আমাদের এখান থেকে এক নারী আসামি লাবনী আক্তার ইমু ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি আছেন। তিনি হত্যা মামলার আসামি।

 

 

 

 

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নাক কান গলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডাক্তার দেবেশ চন্দ্র তালুকদারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, ওই ওয়ার্ডে নারী আসামি ভর্তি আছেন। তবে কার আন্ডারে ভর্তি আছেন, আসামির কি সমস্যা আগামীকাল সকালে তার ফাইল দেখে বলতে পারব।

এই বিভাগের আরো খবর :

আইএসআইয়ের এজেন্ট বিএনপি-জামায়াত : আইনমন্ত্রী
৭ দিন ধরে ধৈর্য ধরেছি : ওবায়দুল কাদের
ভারতের লিগে টানা দ্বিতীয় ম্যাচে সাবিনার গোল
মহাপ্রলয়ের আর মাত্র দুই মিনিট বাকি!
পবিত্র জুম্মার দিনের আমল ও বরকত
পাক-ভারত উত্তেজনা নিয়ে সিনেমা...
জামায়াত এখনই নিষিদ্ধ হচ্ছে না: প্রধানমন্ত্রী
মিরপুরে আগুনে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের জন্য বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা
ময়মনসিংহে সম্রাটের দাম আট লাখ, মালিক চান ১০
কী করছিলেন তখন খালেদা?
জাপান জাহাজে আটকে রেখেছে ৩৭১১ জনকে.....
পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ দেখতে মুন্সীগঞ্জ পৌঁছেছেন রাষ্ট্রপতি
মাদ্রাসার কাজেও চুরি:নিম্মমানের রট,ইটের ব্যবহার মাটিরাঙ্গায় মাদ্রাসা ভবন নির্মাণ কাজে অনিয়মের অভিযোগ
সকালের যেসব নাস্তায় ভুঁড়ি বাড়বে নিশ্চিত
ভারতীয় প্রেমিকের টানে কাঁটাতার পেরিয়ে পাকিস্তানি মেয়ে