প্রথমবার্তা,নিজস্ব প্রতিবেদক:   করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার পর সুস্থ হয়ে ‘ব্লাড প্লাজমা’ দিয়েছেন অন্তত ২০ জন। চীনের উহান শহরের ওই বাসিন্দারা স্থানীয় হাসপাতালে ব্লাড প্লাজমা দিয়েছেন। উহান কোভিড-১৯ গবেষক দল এ তথ্য জানিয়েছে।

 

 

 

 

জানা গেছে, করোনাভাইরাসে আক্রান্তদের চিকিৎসায় ব্যবহার করা হচ্ছে সেই ব্লাড প্লাজমা। যারা ব্লাড প্লাজমা দিয়েছেন, তাদের সবাই নার্স এবং চিকিৎসক। নিজেরা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার পর সেরে উঠেই ব্লাড প্লাজমা দিলেন।

 

 

 

 

জিয়াংসি জেলার ১ নম্বর পাবলিক হাসপাতালে ১০ দিন ধরে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়েছেন তারা। এরই মধ্যে তাদের দেওয়া প্লাজমা ১২ জনের শরীরে দেওয়া হয়েছে।

 

 

 

গবেষকরা বলছেন, ব্লাড প্লাজমা দেওয়ার ১২ থেকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই আক্রান্ত ১২ জনের অবস্থার উন্নতি ঘটেছে। শিগগিরই তারা সুস্থ হয়ে উঠবেন বলে মনে করা হচ্ছে।

 

 

 

তারা আরো বলছেন, এ পদ্ধতিতে আমরা আশাতীত ফল পেয়েছি। জানা গেছে, গত শনিবার ১৪৩ জন সেই হাসপাতাল থেকে করোনাভাইরাস মুক্ত হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। তাদের মধ্যে ১৪ জন ব্লাড প্লাজমা দিয়েছেন।

 

 

 

 

সুস্থ হওয়ার পর ব্লাড প্লাজমা দিয়েছেন লিও নামে এক নারী। তিনি জানান, হাসপাতাল ছাড়ার আগে জানতে পারি যে, আমি প্লাজমা দিতে পারবো।

 

 

 

 

 

আর সেই প্লাজমা করোনাভাইরাসে আক্রান্তের জন্য অত্যন্ত কাজের। এই সময় করোনা আক্রান্ত কাউকে সাহায্য করাটা খুব দরকার। সে কারণে প্লাজমা দিয়েছি।

এই বিভাগের আরো খবর :

ইবি'র মার্কেটিং বিভাগের তয় ব্যাচের ব্যাচ ডে উদযাপিত
শপথ নিলেন ইমরান খান
বিজ্ঞাপনের মডেল ববি।
বিএনপি প্রার্থীর গাড়িতে হামলা, ব্যক্তিগত সহকারি আহত
ফের বাবা হচ্ছেন শাহরুখ?
কোলেস্টেরল-বৃত্তান্ত জেনে রাখুন
পদ্মা নামে নতুন বিভাগের হেডকোয়ার্টার হবে ফরিদপুরে
'দেশের সকল জনপদে রক্তপাতের জন্য আওয়ামী লীগ দায়ী'
চিটাগংয়ের উদ্বোধনী জুটি ভাঙলেন মোস্তাফিজ
আজ রাতে লড়াইয়ে নামছেন মেসি-রোনালদো
মঠবাড়িয়ায় প্রধান শিক্ষকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার
কী করলে এক হাজার নেকি লাভ করা যাবে?
যে কারনে তাবিথের প্রার্থিতা বাতিলে রিট: শুনানি হতে পারে আজ
প্রধানমন্ত্রী উদ্বোধন করলেন শ্রমিক লীগের ১২তম জাতীয় সম্মেলন
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় উত্তাল ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায়