প্রথমবার্তা, প্রতিবেদক: বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসে বিপর্যস্ত সারা বিশ্ব। প্রতিনিয়ত বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। তবে বর্তমানে প্রাণঘাতী এ ভাইরাস মোকাবিলার পাশাপাশি আরো একটি বিষয়ের বিরুদ্ধে জোর লড়াই চালাতে হচ্ছে। সেটি হলো গুজব।

 

 

 

কোভিড-১৯ নিয়ে নানা সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়ানো হচ্ছে ভুল তথ্য। এসব তথ্যের সত্যতা যাচাই না করেই যেকোনো মেসেজ ফরোয়ার্ড করে দেওয়া হচ্ছে। যে কারণে সাধারণ মানুষের মধ্যে তৈরি হচ্ছে বিভ্রান্তি। তাই ভুল তথ্য হোক বা লকডাউন নিয়ে বিভ্রান্তিকর খবর রুখতে এবার কড়া পদক্ষেপ নিল হোয়াটসঅ্যাপ।

 

 

 

 

এরই প্রেক্ষিতে হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ আজ বুধবার এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, এ বার থেকে মেসেজ, ছবি বা ভিডিও একবারে মাত্র একজনকেই ফরোয়ার্ড করা যাবে। এত দিন এক সঙ্গে পাঁচজনকে কোনো মেসেজ ফরোয়ার্ড করা যেত।

 

 

 

 

কিন্তু এবার আর তা করা যাবে না। গত মাসেই হোয়াটসঅ্যাপ তাঁর গ্রাহকদের জন্য একটি নতুন ফিচার এনেছে। হোয়াটসঅ্যাপের বেটা ভার্সনে ফরোয়ার্ড করা মেসেজের সত্যতা যাচাই করে নেওয়ার সুযোগ দেওয়া হয়েছে।

 

 

 

 

সম্প্রতি একটি বেসরকারি সংস্থার সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, লকডাউন চলাকালিন হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার ৪০ শতাংশ বেড়ে গিয়েছে। অনেকেই মনে করছেন, হোয়াটসঅ্যাপে যেসব মেসেজ ফরোয়ার্ড হচ্ছে তার একটা বড় অংশ ভুয়া এবং ভুল তথ্য সম্বলিত। যা কিনা করোনা আতঙ্ককে বাড়িয়ে তুলছে। এই পরিস্থিতিতে হোয়াটসঅ্যাপের নতুন পদক্ষেপ অবশ্যই ইতিবাচক।