প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট : পরীক্ষার্থীর জন্য ম্যাজিস্ট্রেট – টাঙ্গাইলের সখীপুরে ২০১৬ সালের স্নাতক (পাস) পরীক্ষায় সরকারি মুজিব কলেজ কেন্দ্রে মাত্র একজন শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিয়েছেন।

 

 

 

পরীক্ষার্থী একজন হলেও কেন্দ্রে ১২ জন দায়িত্ব পালন করেছেন বলে জানান ওই কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উপজেলা একাডেমিক সুপারভাইজার আনোয়ার হোসেন। আজ বৃহস্পতিবার এ ঘটনা ঘটেছে।

 

 

 

 

ওই পরীক্ষার্থীর নাম ইসরাত জাহান (২০)। তাঁর বাড়ি সখীপুর উপজেলার বেড়বাড়ী গ্রামে। আজ বৃহস্পতিবার বেলা একটায় অর্থনীতি চতুর্থপত্র পরীক্ষায় অংশ নেন তিনি। ইসরাত সখীপুর আবাসিক মহিলা কলেজের শিক্ষার্থী।

 

 

 

 

 

তিনি স্নাতক চূড়ান্ত পর্বের পরীক্ষায় অংশ নেন। বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টায় থানা থেকে প্রশ্ন তুলে পুলিশি পাহারায় কেন্দ্রে আনা হয়। কেন্দ্রের চারপাশে ১৪৪ ধারাও জারি ছিল।

 

 

 

 

 

কলেজের দর্শন বিভাগের প্রভাষক ও কেন্দ্রের পরীক্ষা পরিচালক আবদুল মালেক বলেন, একজন কেন্দ্রসচিব (অধ্যক্ষ), একজন ম্যাজিস্ট্রেট, একজন উপজেলা কর্মকর্তা, দুজন পরীক্ষা পরিচালক, একজন কক্ষ পরিদর্শক, দুজন পুলিশ, একজন করণিক, একজন হিসাবরক্ষক, দুজন পিয়ন দায়িত্ব পালন করেছেন। এঁদের ভাতাও দেওয়া হয়েছে।

 

 

 

 

 

 

 

আজ সাড়ে চারটায় পরীক্ষা শেষ করে একমাত্র পরীক্ষার্থী ইসরাত জাহান বলেন, ‘একা একা পরীক্ষা দিতে ভালোই লেগেছে। জীবনে কখনো এভাবে একা পরীক্ষা দিইনি। অর্থনীতি বিষয়টি কঠিন বলে অন্য সহপাঠীরা নেয়নি। তিন বছর কলেজে একাই ক্লাস করতে হয়েছে।’

এই বিভাগের আরো খবর :

বৃদ্ধাকে কোলে করে মন্দিরে পৌঁছে দিয়ে সোশ্যাল সাইটে তারকা কনস্টেবল আফতাব
আদম-হাওয়ার ভালোবাসা
জেলা প্রশাসকের মোবাইল নম্বর ক্লোন করে টাকা দাবি
ভিডিও ভাইরাল শ্রাবন্তীর! (ভিডিও)
সহজ দু’টি উপাদানেই চিরস্থায়ীভাবে দূর করুন মেছতা
'শাকিবের অভিযোগ মিথ্যা'
এবার আগ্রা হবে অগ্রবন? বিজেপির নাম বদলের রাজনীতি
মুমিনুল দুষলেন কম টেস্ট খেলাকেই.....
হার্ট অ্যাটাক নিয়ে ৫ ভুল ধারণা
এখনও নির্বাচনে থাকতে চাই, আশা করি ইসির ভূমিকা বদলাবে: ফখরুল
‘স্বামীর পায়ের নিচে স্ত্রীর বেহেশত’- এটি কি হাদিস?
ইসলামের দৃষ্টিতে ১৫টি নিয়ম স্ত্রীর সাথে সহবাসের একান্ত জরুরি
ফাগুন বাতাসে স্বাধীনতার ডাক শুনেছিলেন লাখো বাঙালি
গ্রামীণফোনের সিম বিক্রি বন্ধ হয়ে যাচ্ছে.....
সোশ্যাল মিডিয়ায় গুজব ছড়ানো মুনাফিকের আলামত