প্রথমবার্তা ডেস্ক রিপোর্ট : প্রিয়জনের সঙ্গে চরম মুর্হূতের সময় হঠাৎই পেট গুড়গুড়, ঢেঁকুর ৷ ব্যস, সব রোমান্সে একেবারে জল ৷ আপনার পার্টনারটি বিরক্ত, রেগে, লাল ! আপনি তো পুরো হতবাক ৷ কিছু না বুঝতে পেরে ভাবতে বসলেন এ আবার ঘটল কী করে৷ সঙ্গে হতাশা ৷ চিকিৎসকরা বলছেন, যৌনতায় লিপ্ত হওয়ার আগে কিছু খাবার একেবারেই খেতে নেই ৷ নইলেই রোমান্সের অর্ধেক রাস্তাতে গিয়েই আপনি যাবেন থেমে ৷

 

 

 

 

 

ভাজাভুজি খাবার এড়িয়ে চলাই বুদ্ধিমানের কাজ। তার কারণ, ভাজাভুজিতে প্রচুর পরিমাণে ট্রান্স ফ্যাট থাকে। এই ট্রান্স ফ্যাট টেস্টোস্টেরনের মাত্রাকে প্রভাবিত করে। পুরুষের টেস্টোস্টেরন নিঃসরণ কমিয়ে দেয়। তা ছাড়া, ভাজাভুজির তেল ও নুন থেকে পেটে গ্যাস হওয়াটাও অস্বাভাবিক নয়।

 

 

 

 

 

পিত্‍‌জা জাতীয় খাবার থেকে গ্যাস হয়ে পেট ফাঁফতে পারে। ফলে, বিছানায় আলিস্যি বোধ করতে পারেন। তা ছাড়া পিত্‍‌জায় থাকা চিজের বিচিত্র স্বাদ ও গন্ধও আপনার যৌনসুখের পথে বাধা হয়ে দাঁড়াতে পারে। ফলে, বিছানায় যাওয়ার আগে কখনোই পিত্‍জা জাতীয় খাবার মুখে তুলবেন না।

 

 

 

 

 

সেক্সের আগে সোডা রয়েছে এমন কোনও পানীয় একদমই খাবেন না। তা বিয়ার হোক বা অন্য কোনও ঠান্ডা পানীয়। সোডার পরিবর্তে বরং শুধু জল খান বা চাইলে ওয়াইনও খেতে পারবেন।বিনস জাতীয় খাবার পুষ্টিদায়ক। পুরুষের শুক্রাণু বৃদ্ধিতেও বিনসের তুলনা নেই। কিন্তু সেক্সের আগে বিনস রয়েছে এমন যে কোনও খাবারই এড়িয়ে যাওয়া উচিত।

 

 

 

 

 

রসুনও পুরুষদের জন্য খুব উপকারী। রক্তসঞ্চালন বাড়িয়ে পুরুষদের লিঙ্গ দৃঢ় রাখতে সাহায্য করে। টেস্টোস্টেরনের মাত্রাও বাড়ায়। কিন্তু, শারীরিক ভাবে ঘনিষ্ঠ হওয়ার মহূর্তে এই রসুন এড়িয়ে চলাই বুদ্ধিমানের কাজ। মুখ দিয়ে রসুনের গন্ধ আপনার পার্টনারের যে ভালো লাগবে না ৷